advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

দরজার ফাঁক দিয়ে গৃহবধূর গোসলের ভিডিও ধারণ!

নিজস্ব প্রতিবেদক,বগুড়া
৩০ নভেম্বর ২০২০ ১৯:৫২ | আপডেট: ৩০ নভেম্বর ২০২০ ১৯:৫২
প্রতীকী ছবি
advertisement

বগুড়ার শাজাহানপুরে গোপনে এক গৃহবধূর (১৯) গোসলের ভিডিও ধারণ করে কু-প্রস্তাব দেওয়াসহ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় আজ সোমবার দুপুরে ওই গৃহবধূর মা বাদী হয়ে শাজাহানপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

গৃহবধূর মা জানান, তার মেয়ের বিয়ে হয় তিন মাস আগে। বিয়ের পর থেকেই মেয়ে-জামাই তার বাড়িতেই থাকেন। মেয়ের বাবা ঢাকায় রিকশা চালান। জামাই রডমিস্ত্রির কাজে বেশিরভাগ সময় বাড়ির বাইরে থাকেন। মেয়েকে নিয়ে তিনি বাড়িতে থাকেন।

ভুক্তভোগীর মা আরও জানান, গতকাল রোববার দুপুরে তার মেয়ে বাড়ির ভেতর গোসলখানায় গোসল করছিল। এমতাবস্থায় প্রতিবেশী উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের কাঁটাবাড়িয়া দক্ষিণপাড়ার (পতিতপাড়া) নুরুল ইসলামের ছেলে রিপন ইসলাম (২৪) গোপনে গোসলখানার দরজার ফাঁক দিয়ে মেয়ের গোসলের ভিডিও করছিলেন। এ সময় তার মেয়ে দেখতে পেয়ে চিৎকার দিলে রিপন মেয়ের মুখ চেপে ধরে শ্লীলতাহানি করে এবং কু-প্রস্তাব দেন। কু-প্রস্তাবে রাজি না হলে ওই ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দেন। একপর্যায়ে মেয়ের চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে রিপন পালিয়ে যান। এ ঘটনায় রিপনের স্বজনেরা বিষয়টি মীমাংসার জন্য চাপ দিচ্ছে।

গৃহবধূ জানান, রিপন একজন মাদকসেবী ও বখাটে। এর আগেও প্রতিবেশী এক স্বামী-স্ত্রীর বিশেষ দৃশ্য ভিডিও করেছিলেন। রিপনের স্বজনেরা স্থানীয়ভাবে প্রভাবশালী হওয়ায় ওই দম্পত্তি ভয়ে এবং লোকলজ্জার কারণে আইনের আশ্রয় নিতে পারেনি। এভাবে একের পর এক অপকর্ম করে যাচ্ছেন রিপন।

ওই গৃহবধূ আরও জানান, ওই ভিডিও যদি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়া হয়, তাহলে আত্মহত্যা করা ছাড়া কোনো পথ থাকবে না।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত রিপনের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

শাজাহানপুর থানার ওসি আজিম উদ্দীন অভিযোগ দায়েরের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, অভিযুক্তকে আটক করতে পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

advertisement
Evaly
advertisement