advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

হারের বৃত্তে বরিশাল

ক্রীড়া প্রতিবেদক
৫ ডিসেম্বর ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৪ ডিসেম্বর ২০২০ ২৩:৩৭
advertisement

হারের বৃত্ত থেকে যেন বেরই হতে পারছে না ফরচুন বরিশাল। তামিমের দল একের পর এক হারের তেতো স্বাদ নিয়ে মাঠ ছাড়ছে। বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে এখন পর্যন্ত পাঁচ ম্যাচ খেলে তারা জয় পেয়েছে মাত্র একটিতে। টুর্নামেন্টের শুরুতেই হোঁচট খেয়েছিল বরিশাল। কাপ জয়ের অভিযানে প্রথম ম্যাচে খুলনার কাছে ৪ উইকেটে পরাজিত হয়েছিল তারা। এর পর দ্বিতীয় ম্যাচ জিতে ঘুরে দাঁড়ানোর আভাস দিয়েছিল দলটি। কিন্তু তা আর হয়ে ওঠেনি। চট্টগ্রাম, ঢাকার পর গতকাল ফিরতি ম্যাচে জেমকন খুলনার কাছে হেরে গেছে বরিশাল। ম্যাচটি ৪৮ রানে জিতে নিয়েছে মাহমুদউল্লাহর খুলনা। এটি তাদের তৃতীয় জয়।

দল নিয়ে প্রথম থেকেই অসন্তুষ্টির কথা জানিয়েছিলেন তামিম। বলেছিলেন, প্লেয়ার্স ড্রাফটে ভুল করেছে বরিশাল। তামিম ভুল কিছু বলেননি! প্রতি ম্যাচে প্রতিপক্ষের কাছে যে নাকানিচুবানি খাচ্ছে বরিশাল। ব্যাটিং-বোলিং দুই বিভাগই ফ্লপ। জেমকন খুলনা ৬ উইকেটে ১৭৩ রান তুলেছিল। টি-টোয়েন্টির জমানায় লক্ষ্যটা ধরাছোঁয়ার বাইরে ছিল না। কিন্তু তামিমের দল ১৯.৫ ওভারে ১২৫ রান তুলতেই গুটিয়ে গেছে।

বরিশালের অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল। তিনি নিজেও বড় ইনিংস খেলতে পারছেন না। এই ম্যাচে তাকে দায়িত্ব নিতে হতো। কিন্তু ২১ বলে ৩২ রান করে সাজঘরে ফিরে গেছেন তামিম। পারভেজ ইমন (১৯), তৌহিদ হৃদয় (৩৩), ইরফান শুক্কুর (১৬), মাহিদুল অঙ্কন (১০) ছাড়া আর কোনো ব্যাটসম্যানই দুই অঙ্কের ঘরে রান পাননি। মিরাজ ও আফিফ নিজের নামের প্রতি সুবিচার করতে পারছেন না। তারা ব্যাট হাতে ব্যর্থ। শহিদুল, হাসান ও শুভাগত হোম দুটি করে উইকেট শিকার করেছেন।

মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে টস হেরে প্রথমে ব্যাটিংয়ে নামা খুলনার শুরুটা ভালো ছিল না। দলীয় ১৯ রানে জহুরুলের উইকেট হারায় তারা। তবে জাকির হাসান ও ইমরুল কায়েসের দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে দারুণভাবে ঘুড়ে দাঁড়ায় খুলনা। তারা স্কোরকার্ডে ৯০ রান জমা করেন। দারুণ ব্যাটিং করেছেন জাকির। ৪২ বলে ১০টি চারের সাহায্যে ৬৩ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেছেন এই ওপেনার। ইমরুল ৩৭ রান করেন। এ ম্যাচেও ব্যাট হাতে ব্যর্থ সাকিব। চার নম্বরে নামা খুলনার অলরাউন্ডার ১০ বলে ১৪ রান করেছেন। মাহমুদউল্লাহ অবশ্য সময় উপযোগী ব্যাটিং করেছেন। তার ১৪ বলে ২৪ রানের ইনিংসটা খুলনাকে বড় সংগ্রহের ভিত গড়ে দিয়েছে। ম্যাচে খরুচে বোলিং করেছেন তাসকিন। বরিশালের পেসার ১১ ইকোনমিতে ২ উইকেট শিকার করেছেন। ৮.২৫ ইকোনমিতে রাব্বি তুলে নিয়েছেন ৩ উইকেট।

advertisement
Evaly
advertisement