advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

মেলায় আড়াই হাজার নতুন বই

মুহম্মদ আকবর
৯ এপ্রিল ২০২১ ০০:০০ | আপডেট: ৮ এপ্রিল ২০২১ ২২:৫৩
advertisement

অমর একুশে বইমেলার ২২ দিন চলে গেল। যদিও মহামারী পরিস্থিতি, বৈরী আবহাওয়া, সরকারি বিধিনিষেধসহ নানাবিধ কারণে আজ অবধি বইপ্রেমীরা মেলা প্রাঙ্গণে তেমন আসেননি। এমনকি স্বাস্থ্যঝুঁকির কথা বিবেচনা করে অনেক জনপ্রিয় ও অগ্রজ লেখকও আসেননি মেলায়। ফলে অতীতের মতো এবার চেনা রূপে ফেরেনি বাঙালির এই প্রাণের মেলা। বইপ্রেমীদের সমাগম কম হলেও প্রকাশকদের প্রস্তুতির অবশ্য কমতি নেই। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, মুক্তিযুদ্ধ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, অন্যান্য ইতিহাস, সাহিত্য, চিকিৎসা মিলে গত ২২ দিনে মোট ২ হাজার ৩৩৩টি নতুন বই মেলায় এসেছে।

জানা গেছে, এবার মেলায় সবচাইতে বেশি বই এসেছে বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও শেখ হাসিনাকে নিয়ে। আগামী প্রকাশনী বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের বিভিন্ন বিষয়ের ওপর ১০০টি বই প্রকাশ করেছে। বাংলা একাডেমি ১০০টি বই প্রকাশের উদ্যোগ নিলেও এসেছে ৪০টি। এ ছাড়া তাম্রলিপি ৪৬টিসহ অন্য প্রকাশ, কথা প্রকাশ, অন্বেষা, অনিন্দ্য, পাঞ্জেরিসহ বেশ কিছু প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান বঙ্গবন্ধু ও

মুক্তিযুদ্ধের ওপর বেশি বই প্রকাশ করেছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার মেলা ঘুরে দেখা গেছে, স্টলে স্টলে সারিবদ্ধভাবে সাজানো আছে নতুন বই। যদিও সেসব বই উল্টে দেখা বা বই কেনার মতো মানুষের উপস্থিতি ছিল হাতেগোনা। আজিমপুর থেকে আগত ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ে বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী জান্নাতুল ফেরদাউস মৌ বলেন, এবার মেলায় অনেক নতুন বই আছে। কেনার তালিকাও অনেক কিন্তু সামর্থ্য নেই। করোনার কারণে টিউশনিগুলো ছুটে গেছে। ফলে খরচের জন্য গ্রাম থেকে যে টাকা আসে তা দিয়ে কেবল থাকা ও খাওয়ার ব্যবস্থা হয়। তাই মেলায় এসে বইয়ের পাতা উল্টাচ্ছেন আর আফসোস করছেন। দীর্ঘশ^াস ফেলে বললেন, আশা রাখি সব ঠিক হয়ে যাবে। আবারও মেলা হবে, পছন্দের বই নিয়ে বাড়ি ফিরব।

খুব একটা বেচাবিক্রি না হওয়ায় স্টলে গিয়ে প্রকাশকদেরও দেখা মেলে না। তাদের জ্ঞান ও সৃজনশীল পুস্তক প্রকাশনা সমিতির অফিসে দলবেঁধে গল্প করতে দেখা গেছে। তাদের গল্পে ফুটে উঠছে অতীতের স্মৃতিচারণ। প্রকাশনাশিল্প এগিয়ে যাওয়া ও পিছিয়ে যাওয়ার কথাও বাদ যাচ্ছে না তাদের গল্পে। এবারের মেলার সংকট ও বাংলা একাডেমির প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করতেও দেখা গেছে তাদের।

এদিকে গতকাল মেলায় নতুন বই এসেছে ৪৭টি। মেলা শুরু হয় দুপুর ১২টায়, শেষ হয় বিকাল ৫টায়। যথারীতি আজ মেলা শুরু হবে ১২টায়, শেষ হবে ৫টায়।

advertisement