‘স্বাধীনতা সোপান’ সাঁথিয়ায়

আবু ইসহাক, সাঁথিয়া
২৩ মার্চ ২০১৯ ০০:০০ | আপডেট: ২২ মার্চ ২০১৯ ২৩:৪৯

পাবনার সাঁথিয়ায় উপজেলা পরিষদ চত্বরে নির্মিত মুক্তমঞ্চ (স্বাধীনতা সোপান) নতুন প্রজন্মের কাছে এখন অনুকরণীয়। এই মুক্তমঞ্চে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে মহান ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে মুক্তিযুদ্ধের বিভিন্ন তথ্যসংবলিত নির্দেশনা। আগামী ২৬ মার্চ এটি উদ্বোধন করার কথা।

গত জানুয়ারির শুরুর দিকে সাঁথিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম এই মুক্তমঞ্চ নির্মাণের উদ্যোগ নেন। মুক্তিযুদ্ধকে উপজীব্য করতে প্রায় ৫ লাখ টাকা ব্যয়ে এই প্রকল্প গ্রহণ করা হয়।

মুক্তমঞ্চটির দৈর্ঘ্য ২৬ ফুট (২৬ মার্চ) ও প্রস্থ ১৬ ফুট (১৬ ডিসেম্বর), যা দ্বারা মহান স্বাধীনতা ও বিজয় দিবসকে বোঝানো হয়েছে। মূল মঞ্চে ২১টি দাগ কেটে ২১ ফেব্রুয়ারিকে বোঝানো হয়েছে। মঞ্চে উঠতে ও নামতে পাঁচটি ধাপ রয়েছে, যা দ্বারা স্বাধীনতার ৫টি গুরুত্বপূর্ণ ধাপ বোঝানো হয়। দুপাশের ৬ ফুট লম্বা দেয়াল ছয় দফা আন্দোলনের নির্দেশনা। এ ছাড়াও দুপাশে ৭ ফুট লম্বা দুটি দেয়াল দ্বারা যথাক্রমে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ ও ৭ বীরশ্রেষ্ঠকে বোঝানো হয়েছে। সাড়ে নয় ফুট দীর্ঘ দুটি পিলার দ্বারা সাড়ে নয় মাসের যুদ্ধ এবং দুই পিলারের মাঝখানে ১১ ফুট ব্যবধান দ্বারা ১১টি সেক্টরকে উল্লেখ করে বাংলাদেশের মানচিত্রের ম্যুরাল দেখানো হয়েছে। শীর্ষে রয়েছে দেশ ও জাতির প্রতীক জাতীয় পতাকা। দৃষ্টিনন্দন নির্মাণশৈলীর কারণে এই মুক্তমঞ্চ সব শ্রেণিপেশার মানুষের কাছে আকর্ষণীয় হয়ে উঠেছে, যা থেকে প্রজন্মের পর প্রজন্ম স্বাধীনতা, ভাষা আন্দোলন ও ৬ দফাসহ স্বাধীনতা সংগ্রামের ইতিহাস জানতে পারবে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম জানান, স্বাধীনতা সোপানের মাধ্যমে স্বাধীনতা সংগ্রামের ইতিহাস নতুন প্রজন্মকে জানাতে ও উদ্বুদ্ধ করতে চেষ্টা করেছি মাত্র। যখন মুক্তিযোদ্ধারা থাকবে না, ঠিক তখন যেন জাতি তার স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাস জানতে পারে, সে জন্যই এ মুক্তমঞ্চটি নির্মাণে আগ্রহী হই।