চলচ্চিত্রের গানের তিন জুটি, উপহার দিয়েছেন অসংখ্য কালজয়ী গান

তারেক আনন্দ
৮ জুলাই ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৮ জুলাই ২০২০ ০৯:২১

প্লেব্যাক সম্রাট এন্ড্রু কিশোর। চলচ্চিত্রে অসংখ্য জনপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন। একক কণ্ঠে যেমন তার কালজয়ী গান রয়েছে, তেমনি দ্বৈতকণ্ঠেও। রুনা লায়লা, সাবিনা ইয়াসমিন ও কনকচাঁপার সঙ্গে সফল জুটিবেঁধে উপহার দিয়েছেন অসংখ্য গান। এই তিন তারকার সঙ্গে এন্ড্রু কিশোরের গাওয়া ১০টি করে জনপ্রিয় গান নিয়েই আজকের আয়োজন। লিখেছেন- তারেক আনন্দ

রুনা লায়লা-এন্ড্রু কিশোর

কিংবদন্তি কণ্ঠশিল্পী রুনা লায়লার সঙ্গে এন্ড্রু কিশোরের অসংখ্য জনপ্রিয় গান আছে। এরমধ্যে দুই জীবন ছবির হৃদয়ছোঁয়া গান- ‘তুমি আজ কথা দিয়েছো, বলেছো ও দুটি মন ঘর বাঁধবে’। মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় গানটির সুর করেছেন প্রখ্যাত সুরকার আলম খান। রোমান্টিক কথার এ গানটি সুর, সংগীত ও গায়কীর কারণে বেঁচে থাকবে অনন্তকাল। রুনা লায়লা-এন্ড্রু কিশোরের আরেকটি জনপ্রিয় গান- ‘তুমি আমার জীবন, আমি তোমার জীবন, দুজন দুজনার কত যে আপন কেউ জানে না’।

কালজয়ী এ গানটি অবুঝ হৃদয় ছবির। আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুলের কথা ও সুরের এ গানটি বছরের পর বছর শ্রোতার হৃদয়ে স্থান করে নিয়েছে। ‘আমি একদিন তোমায় না দেখিলে, তোমার মুখের কথা না শুনিলে পরান আমার রয় না পরানে’- এ গানটি শোনেননি এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া যাবে না। কথা লিখেছেন মনিরুজ্জামান মনির, সুর ও সংগীত করেছেন আলম খান। ‘চাঁদের সাথে আমি দেব না তোমার তুলনা’- সৈয়দ শামসুল হকের কথায় গানটির সুর ও সংগীত করেছেন আলম খান। আশির্বাদ ছবির এ গানটি আজও শ্রোতার মুখে মুখে ফেরে।

‘বেদের মেয়ে জোছনা আমায় কথা দিয়েছে, আসি আসি বলে জোছনা ফাঁকি দিয়েছে’- তোজাম্মেল হক বকুল পরিচালিত বেদের মেয়ে জোছনা ছবিটি বাংলাদেশের ইতিহাসে সবচেয়ে ব্যবসাসফল চলচ্চিত্র। ছবির গানের কারণে সাধারণ মানুষের হৃদয় স্পর্শ করেছিল এ চলচ্চিত্র। বিশেষ করে ‘বেদের মেয়ে জোসনা আমায় কথা দিয়েছে’- এ গানটি ঝড় তোলে সারাদেশের মানুষের মাঝে। ‘এখানে দুজনে নির্জনে সাজাবো প্রেমেরও পৃথিবী, পাখি শোনাবে যে গান, সুরে ভরে দেবে প্রাণ, ফুল দেবে ছড়িয়ে সুরভী’- এমন কণ্ঠের গানে ঠোট মিলিয়ে সালমান শাহ-মৌসুমী কোটি দর্শকের মনে জায়গা করে নিয়েছেন। মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় গানটির সুরকার আলম খান।

‘আমি ঝিনুক কুড়াতে এসে মুক্ত পেলাম, সেই মুক্তোর মায়াজালে জড়িয়ে গেলাম...’। আহা গানের কী কথা! এটি কিংবদন্তি সুরকার-গীতিকার আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুলের সৃষ্টি। এন্ড্রু কিশোর ও রুনা লায়লার আরেকটি গান- ‘মনটা হলো আজ যমুনা, চলো ডুবে যাই দুজনা’- মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় গানটির সুরকার আমির আলী। ‘আর যাব না আমেরিকা...’- এ গানটিরও কথা লিখেছেন মনিরুজ্জামান মনির আর সুরকার আলম খান। ‘স্বভাব কি আর ধুইলে যায়, বইতে দিলে শুইতে চায়’- আব্দুল হাই আল হাদির কথায় সুর করেছেন আলাউদ্দিন আলী।

সাবিনা ইয়াসমিন-এন্ড্রু কিশোর

সাবিনা ইয়াসমিনের সঙ্গে এন্ড্রু কিশোরের অসংখ্য কালজয়ী গান রয়েছে। যে গানগুলো থেকে যাবে যুগের পর যুগ। হৃদয়ছোঁয়া সুর, গানের কথা ও তাদের গায়কী শ্রোতার মনে গেঁথে থাকবে অনন্তকাল। তেমনি একটি গান- ‘তুমি আমার কত চেনা সেকি জানো না, এই জীবনের আশা তুমি তুমি যে ঠিকানা’- মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় গানটির সুরকার আলম খান। মনিরুজ্জামান মনিরের কথা ও আলম খানের সুরে সাবিনা ইয়াসমিন ও এন্ড্রু কিশোরের আরেকটি বিখ্যাত গান- ‘কি দিয়া মন কাড়িলা ও বন্ধুরে, অন্তরে পিরিতের আগুন ধরাইলা’। এসব গান রুপালি পর্দায় দর্শকরা আলমগীর-শাবানার ঠোঁটে শুনেছেন। হল থেকে বের হয়েছেন অনাবিল সুখ ও প্রশান্তি নিয়ে। মো. আলমগীর কবীরের কথায় ‘ঝিনুকমালা’ ছবির কালজয়ী গান- ‘তুমি ডুব দিও না জলে কন্যা ঝিনুক খুঁজে পাইবা না, মুক্তা তাতে রইবে না, এই ঝিনুকের মাঝে তুমি মুক্তা খুঁইজা দেখো না...’।

এন্ড্রু কিশোর ও সাবিনা ইয়াসমিনের এসব গান মানুষ যতদিন থাকবে ততদিন রয়ে যাবে। গানটির সুরকার আনোয়ার জাহান নান্টু। ঝিনুকমালা ছবির আরেকটি গান- ‘তুমি আমার মনের মাঝি আমার পরান পাখি, আমার বাড়ি যাইয়ো দিমু ভালোবাসা, তুমি আমায় পাগল কইরো না যামু তোমার বাড়ি, তোমার পায়ে মরিবার বাসনা রাখি...’। মো. আলমগীর কবীরের কথায় গানটির সুর করেছেন আনোয়ার জাহান নান্টু। ‘কি জাদু করিলা পিরিতি শিখাইলা, থাকিতে পারি না ঘরেতে’- প্রাণসজনী ছবির এ গানটির কথা লিখেছেন মনিরুজ্জামান মনির, সুরকার আলম খান। গানের সুর, কথা ও গায়কী হৃদয়ে দোলা দিয়ে যায়। ওই সময়ের প্রেক্ষাপটে এ গানগুলো তৈরি হলেও গানের আবেদন কখনো শেষ হবে না।

‘সবাই তো ভালোবাসা চায়, কেউ পায় কেউ বা হারায় তাতে প্রেমিকের কি আসে যায়...’। নব্বই দশকে শ্রোতার মাঝে সিনেমার এ গানটি ঝড় তুলেছিল, যার রেশ এখনো রয়ে গেছে। গানের কথা লিখেছেন প্রখ্যাত গীতিকার গাজী মাজহারুল আনোয়ার। সুরকার আলম খানের এটি আরেকটি কালজয়ী গান। ‘সব সখিরে পার করিতে নেব আনা আনা, তোমার বেলায় নেব সখি তোমার কানের সোনা, সখি গো ও আমি প্রেমের ঘাটের মাঝি তোমার কাছে পয়সা নেব না...’। কালজয়ী এ গানের রচয়িতা খান আতাউর রহমান। সুর করেছেন আবু তাহের। এ সব গান একবার নয়, বার বার শুনতে মন চায়। ক্ষণজন্মা নায়ক সালমান শাহ-অভিনেত্রী শাবনুর। ছবির নাম স্বপ্নের ঠিকানা। গান- ‘এই দিন সেই দিন কোনো দিন তোমায় ভুলবো না, চলতে চলতে পাবো দুজন স্বপ্নের ঠিকানা’। মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় গানটির সুরকার ও সংগীত পরিচালক আলম খান। এন্ড্রু কিশোর ও সাবিনা ইয়াসমিনের এই গান দর্শক-শ্রোতার মাঝে ব্যাপক সাড়া ফেলে।

‘পৃথিবীর যত সুখ আমি তোমার এ ছোঁয়াতে খুঁজে পেয়েছি, মনে হয় তোমাকেই আমি জনম জনম ধরে পেয়েছি’। কী অসাধারণ কথা ও সুর, হৃদয়ে তীরের মতো এসে বিদ্ধ করে। কালজয়ী এ গানের সুরকার ও গীতিকার আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুল। সালমান শাহ পরবর্তী চলচ্চিত্রের হাল ধরেন রিয়াজ। তিনি দর্শককে একে একে উপহার দেন জনপ্রিয় ছবি। রিয়াজ অভিনীত প্রথম দিকের হিট ছবি ‘হৃদয়ের আয়না’। আর এই ছবির একটি গানই যেন দর্শককে টেনে হলে নিয়ে গেছে। সেই গানটি হলো- ‘তুমি চাঁদের জোছনা নও, তুমি ফুলের উপমা নও, নও কোনো পাহাড়ী ঝর্ণা, আয়না তুমি হৃদয়ের আয়না...’। ‘

একজন মানুষের কথা কি করে এত জনপ্রিয় হতে পারে? কিভাবে পারেন কোটি কোটি মানুষের হৃদয় ছুঁতে? সেটির উত্তর তিনিই জানেন’- মনিরুজ্জামান মনির। এ গানের কথাও তিনি লিখেছেন, সুর করেছেন আলম খান। সালমান শাহের ছবি মানেই হিট। সালমানের ঠোঁটে গান মানেই জনপ্রিয়তার আকাশছোঁয়া। তেমনি একটি গান ‘প্রিয়জন’ ছবির ‘এ জীবনে যারে চেয়েছি আজ আমি তারে পেয়েছি, তুমি আমার সেই তুমি আমার, তোমারে খুঁজে পেয়েছি...’। গানের কথা লিখেছেন মনিরুজ্জামান মনির আর সুর করেছেন আলম খান।

এন্ড্রু কিশোর-কনকচাঁপা

রুনা লায়লা ও সাবিনা ইয়াসমিনের পর কনকচাঁপার সঙ্গে জুটিবেঁধে অনেক জনপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন এন্ড্রু কিশোর। সালমান শাহ-শাবনুর অভিনীত ‘তোমাকে চাই’ ছবির ‘ভালো আছি ভালো থেকো, আকাশের ঠিকানায় চিঠি লিখো...’। এই গানটির রচয়িতা কবি রুদ্র মুহম্মদ শহিদুল্লাহ। এন্ড্রু কিশোর ও কনকচাঁপার কণ্ঠের একটি কালজয়ী গান। গানটির সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুল। একই ছবির আরেকটি জনপ্রিয় গান- ‘তোমাকে চাই শুধু তোমাকে চাই, আর কিছু জীবনে পাই বা না পাই...’। গানের কথা ও সুর করেছেন আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুল।

চলচ্চিত্রের সোনালি দিনের শেষ সময়ে তারকা সংগীত পরিচালক ছিলেন আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুল। একটা সময় ফিল্মের গান মানেই ছিল আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুলের কথা ও সুরের গান। বিশেষ করে এন্ড্রু কিশোর, কনকচাঁপাকে জুটি করে উপহার দিয়েছেন বেশকিছু সুন্দর সুন্দর গান। এন্ড্রু কিশোর ও কনকচাঁপার গাওয়া তেমনি আরেকটি গান ‘সাগরের মতোই গভীর, আকাশের মতোই অসীম আমার এ প্রেম আমি তোমাকে দিলাম, তোমারই আছি আমি তোমারই ছিলাম...’। ‘জীবন ফুরিয়ে যাবে ভালোবাসা ফুরাবে না জীবনে, মোরা আরও আগে কেন আসিনি, কেন আসিনি এই ভুবনে...’। কালজয়ী এ গানের কথা ও সুর করেছেন আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুল।

‘আমার হৃদয় একটা আয়না, এই আয়নায় তোমার মুখটি ছাড়া কিছুই দেখা যায় না...’। এটির কথা ও সুর আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুলের। ‘একটু চাওয়া একটু পাওয়া কাছে এসে চলে যাওয়া, আর তো ভালো লাগে না, মন মানে না আমার মন মানে না...’। কথা ও সুর আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুল। একটি জেনারেশন এসব গান বুঁদ হয়ে শুনেছে। শুনে শুনে অজানায় হারিয়ে গেছে...। ‘যে জিবনে তুমি ছিলে না সে জীবন জীবন তো নয়, তোমাকে কাছে পেয়ে আজ শুধু তাই মনে হয়...’। এটিও আহম্মেদ ইমতিয়াজ বুলবুলের আরেকটি অনন্য সৃষ্টি।

‘তুমি জানো নারে প্রিয় ও তোমায় কত ভালোবাসি গো, মনের ভেতরে বাইরে আর কেউ নাই রে...’। কবীর বকুলের কথায় গানটির সুর করেছেন আলী আকরাম শুভ। ‘একবিন্দু ভালোবাসা দাও আমি এক সিন্ধু হৃদয় দেব...’। মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় গানটির সুর ও সংগীত করেছেন আলী আকরাম শুভ। মনিরুজ্জামান মনিরের কথায় আরেকটি জনপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন এন্ড্রু কিশোর ও কনকচাঁপা। ‘কি জাদু করেছো বলো না, ঘরে আর থাকা যে হলো না...’। গানটির সুর ও সংগীত করেছেন আলী আকরাম শুভ।