সিলিন্ডার বিস্ফোরণে একই পরিবারের ১০ জন দগ্ধ

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি
২৫ অক্টোবর ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ২৫ অক্টোবর ২০২০ ০০:২৫

কিশোরগঞ্জের হাওর অধ্যুষিত মিঠামইন উপজেলার কাটখাল ইউনিয়নের হাজিপাড়া গ্রামে রান্না করার সময় গ্যাসের সিলিন্ডার বিস্ফোরণে শিশু ও নারীসহ একই পরিবারের ১০জন দগ্ধ হয়েছেন। গতকাল দুপুরে রান্নার সময় গ্যাসের পাইপের লিকেজ থেকে গ্যাস পুরো ঘরে ছড়িয়ে পড়লে এ ঘটনা ঘটে। ১০জনের মধ্যে পাঁচজনের অবস্থা গুরুতর। তাদের মধ্যে শিফা বেগম, জামাল মিয়া ও উম্মেহানির অবস্থা আশঙ্কাজনক। সবার শরীরের ৭০ শতাংশ পুড়ে গেছে। দগ্ধদের ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে পাঠানো হয়েছে।

দগ্ধরা হলেন আবদুস সালামের স্ত্রী শিফা বেগম, তিন ছেলে কামাল, আনোয়ার ও জামাল, মেয়ে তাসলিমা, জুয়েনা, তাসলিমার দুই শিশুকন্যা উম্মে হানি (৩) উম্মে হাবিবা (৩ মাস) ও এবং আবদুস সালামের বড় ছেলে আবদুল আলীর মেয়ে পারভিন (১৫) ও তহুরা (১০)।

কাটখাল উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি শামসুল হক রানা জানান, হাজিপুর গ্রামের আবদুস সালামের ঘরে রান্না করার সিলিন্ডারের পাইপে ছিদ্র ছিল। সেই ছিদ্র দিয়ে আগেই গ্যাস পুরো ঘরে

ছড়িয়ে ছিল। সালামের স্ত্রী সিপাইনেছা রান্না করতে গিয়ে চুলা জ্বালাতে পারছিলেন না। এ সময় তারা বাইরে থেকে আগুন নিয়ে চুলা জ্বালাতে গেলে পুরো ঘরে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় তারা দগ্ধ হয়েছেন। পরে এলাকাবাসীরা আগুন নেভানোসহ দগ্ধদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

পুলিশের কাটখাল তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ এসআই মো. মাসুদ মিয়া জানান, এ অসাবধানতার কারণেই এই ঘটনা ঘটেছে।

বাজিতপুরের জহুরুল ইসলাম মেডিক্যাল জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা.আবু বকর সিদ্দিক জানান, পুড়ে যাওয়া দুই শিশুসহ সবাইকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে রেফার্ড করা হয়েছে।