ভবিষ্যতের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় মানসম্মত শিক্ষার বিকল্প নেই : ইউজিসি’র চেয়ারম্যান

নিজস্ব প্রতিবেদক
২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ২১:৪৯ | আপডেট: ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ২১:৪৯
বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় বক্তব্য দেন ইউজিসি’র চেয়ারম্যান কাজী শহীদুল্লাহ্

ভবিষ্যতের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় মানসম্মত শিক্ষার কোনো বিকল্প নেই বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক কাজী শহীদুল্লাহ্।  

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে কাজী শহীদুল্লাহ্ মন্তব্য করেন।

ইউজিসি’র চেয়ারম্যান বলেন, ‘ভবিষ্যতের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় মানসম্মত শিক্ষার কোনো বিকল্প নেই। যুগের চাহিদার সাথে তাল মিলিয়ে চলতে হলে মানসম্মত শিক্ষার ওপর গুরুত্বারোপ করতে হবে। আমরা ভবিষ্যতে কোথায় থাকব সে বিষয়ে পরিকল্পনা এখনই গ্রহণ করতে হবে। কেননা নিত্য নতুন চ্যালেঞ্জ আসবে সেগুলোকে মোকাবিলা করেই আমাদেরকে এগিয়ে যেতে হবে। বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে মানসম্মত শিক্ষার সাথে সাথে মানসম্মত গবেষণাও নিশ্চিত করতে হবে। আজকের শিক্ষার্থীরাই আগামীর কর্ণধার। তাই তাদেরকে যোগ্য হিসেবে গড়ে তুলতে আমাদের শিক্ষকদেরকে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে।’

এর আগে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আজ সকাল ১০টায় জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মাধ্যমে জাতীয় পতাকা এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের পতাকা উত্তোলন করেন ববির উপাচার্য অধ্যাপক মো. ছাদেকুল আরেফিন এবং কলা ও মানবিক অনুষদের ডিন অধ্যাপক মো. মুহসিন উদ্দীন।

পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিন, রেজিস্ট্রার, শিক্ষক সমিতির সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, প্রক্টর, প্রভোস্ট, বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষকমন্ডলী, কর্মকর্তা, কর্মচারীসহ ববির বিভিন্ন সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকদের সাথে নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে স্থাপিত ঐতিহাসিক ৬ দফার ইতিহাস সম্বলিত জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে বিনম্ন শ্রদ্ধা নিবেদন করেন উপাচার্য।

১০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে বেলা ১১টায় ভার্চুয়াল আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। সভাপতির বক্তব্যে গত ১৬ ফেব্রুয়ারি দিবাগত রাতে ববির শিক্ষার্থীদের ওপর বর্বোরচিত হামলায় আহত শিক্ষার্থীদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান উপাচার্য অধ্যাপক মো. ছাদেকুল আরেফিন। তিনি ওই হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে অনতিবিলম্বে হামলাকারীদের আইনের আওতায় এনে  শাস্তি নিশ্চিতের দাবি জানান। একই সাথে বিশ্ববিদ্যালয় দিবসের এই মাহেন্দ্রক্ষণে উপাচার্য বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক কার্যক্রমের স্থিতিশীলতা বজায় রাখতে বরিশালবাসীসহ বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের সকলের প্রতি উদাত্ত আহ্বান  জানান।

সভায় আরও বক্তব্য দেন ববি শিক্ষক সমিতির সভাপতি মো. আরিফ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ড. মো. খোরশেদ আলম, অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি বাহাউদ্দীন গোলাপ, গ্রেড ১১-১৬ কল্যাণ পরিষদের সভাপতি ফয়সাল কিবরিয়া, ১৭-২০ কল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান। রেজিস্ট্রার (অ.দা.) অধ্যাপক ড. মো. মুহসিন উদ্দীনের সঞ্চালনায় সভায় বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক, শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা যুক্ত ছিলেন।