পাইলসের অপারেশন এবং ভ্রান্ত ধারণা

  অনলাইন ডেস্ক

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০০:০০ | আপডেট : ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০০:১৯ | প্রিন্ট সংস্করণ

প্রতিদিন যত রোগী দেখি, তার বেশিরভাগই পাইলসে আক্রান্ত। এদের মধ্যে যেমন আছে নতুন পাইলসের রোগী, তেমনি পুরনো পাইলসের রোগীও। চিকিৎসার পরও গ্যানগ্রিন হয়েছেÑ এমন রোগীও আসেন। সবারই প্রশ্নÑ পাইলসের অপারেশন একবার করলে নাকি বারবার করতে হয়? স্বাভাবিকভাবেই বোঝা যায়, এ প্রশ্নটি ব্যাপক মানুষের মধ্যেই রয়েছে।

ভ্রান্ত ধারণার কারণ : আসলে জবপঁৎৎবহপব বা আবার পাইলস হওয়ার হার হাজারে এক বা দুটি। এটা অতিস্বাভাবিক ধরা যেতে পারে। তবে জনমনে এ আশঙ্কার ভিত্তি আছে। আমাদের দেশে কলোরেক্টাল সার্জন অর্থাৎ এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের সংখ্যা হাতেগোনা। আগে একেবারেই ছিল না। ফলে জেলা পর্যায়ে এমবিবিএস ডাক্তার থেকে বিশেষজ্ঞ সার্জনÑ সবাই পাইলসের অপারেশন করেন। ফলে চিকিৎসায় ত্রুটি রয়ে যেতে পারে।

জটিলতার ধরন : পায়ুপথ স্থানটি অতি- সংবেদনশীল। তাই যথাযথ অপারেশন না হলে এবং অপারেশন পরবর্তী নিয়মকানুন যথাযথভাবে মেনে না চললে জটিলতা হতে পারে। এ জটিলতা দুই ধরনেরÑ ক. পাইলস আবার হওয়া এবং খ. পায়ুপথ সরু হয়ে যাওয়া। যথাযথভাবে অপারেশন না হলে এ দুটির যে কোনো একটি হতে পারে। তবে অপারেশন যথাযথভাবে হলে সমস্যা হওয়ার হার খুবই কম। আবার হওয়ার হার এক শতাংশেরও নিচে।

পায়ুপথের অন্যান্য রোগ : আবার হওয়ার ব্যাপারে প্রচলিত ধারণার আরও যেসব কারণ আছে তা হলোÑ পায়ুপথে অনেক রোগ হয়, যেমনÑ পাইলস, ফিসার, ফিস্টুলা ইত্যাদি। এগুলোর মধ্যে কয়েকটি রোগ বারবার হওয়ার প্রবণতা থাকে, যেমনÑ ফিস্টুলা। এটির একবার অপারেশন করলে আবার হওয়ার হার বিশ্বব্যাপীই বেশি। কিন্তু পাইলসে নয়। কিন্তু মানুষ পায়ুপথের যে কোনো রোগই পাইলস ভেবে থাকেন। ফলে এ নিয়ে উৎপত্তি হয় ভ্রান্ত ধারণার। আরও একটি কারণ হলোÑ পাইলসের অপারেশন করার পর রোগীর পরবর্তী সময়ে পায়ুপথে অন্য রোগ হতে পারে। সেটাও পাইলস বলে অনেকে ভুল করতে পারেন।

পাইলস অপারেশন : সোজা এবং সহজ কথায় বলা যায়, পাইলসের অপারেশন একবার করলে বারবার করতে হয় না। সঠিকভাবে এবং যথাযথভাবে এ রোগের অপারেশন হলে এবং অপারেশনের পরবর্তী নিয়মকানুন মেনে চললে আবার পাইলস হওয়ার কোনো আশঙ্কাই নেই। রোগীরা এ ব্যাপারে নিশ্চিত থাকতে পারেন।

লেখক : পাইয়োনিয়ার কলোরেক্টাল সার্জন

চেম্বার : জাপান-বাংলাদেশ ফ্রেন্ডশিপ হসপিটাল, ৫৫ সাতমসজিদ রোড, ধানম-ি, ঢাকা

০১৬২৬৫৫৫৫১১, ০১৮৬৫৫৫৫৫১১

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে