আইন সহজ হচ্ছে

  নিজস্ব প্রতিবেদক

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

করদাতাদের হয়রানি কমানোর পাশাপাশি নিজের কর যাতে নিজেই দিতে পারেন, সে জন্য প্রয়োজনীয় সংস্কারের উদ্যোগ নিয়েছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। এ জন্য আরও সহজ করা হচ্ছে আয়কর আইন। এরই মধ্যে আইনের খসড়া তৈরি করেছে এনবিআর। এখন এটি আরও পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হচ্ছে। এর একটি অনুলিপি অর্থ মন্ত্রণালয়েও পাঠানো হয়েছে।

জানা গেছে, সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী বছরের জুলাইয়ে জাতীয় সংসদে আইনটি পাস করা হতে পারে। নতুন আয়কর আইনটির ভাষা হবে বাংলায়। এর ইংরেজি অনুবাদও থাকবে। এনবিআর সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। ‘সার্বিকভাবে বিনিয়োগবান্ধব ও গণমুখী’ একটি কর আইন তৈরি করবে রাজস্ব আহরণকারী এ সংস্থাটি।

এনবিআর সূত্র জানিয়েছে, নতুন আইনে করদাতাদের বার্ষিক আয়কর বিবরণী বা রিটার্ন জমায় তেমন কোনো বড় পরিবর্তন আসবে না। তবে ডিজিটাল পদ্ধতিতে রিটার্ন জমার সুযোগ থাকবে। এ ছাড়া নতুন আইনের খসড়ায় করপোরেট করহার অপরিবর্তিত থাকবে বলে জানা গেছে। নতুন আইনে বিদ্যমান আইনের বিষয়গুলোর পাশাপাশি বহির্বিশ্বের সঙ্গে ব্যবসা-বাণিজ্যের বিষয়গুলো বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। এসব ক্ষেত্রে সমন্বয় রেখে আইনে পরিবর্তন আনা হচ্ছে।

জানা গেছে, অর্থপাচার প্রতিরোধে নতুন আইনের খসড়ায় একাধিক ধারা থাকবে। বিশেষ করে ট্রান্সফার প্রাইসিংয়ে স্বচ্ছতা আনতেই এই উদ্যোগ। কোনো কোম্পানি নিজেদের আয়ের ওপর কম কর দিয়ে বাড়তি মুনাফা অন্য কোম্পানিতে নিয়ে যাচ্ছে কিনা, এসব বিষয় নজরদারি করার জন্যও নতুন আইনে বিভিন্ন ধারা থাকবে।

অন্যদিকে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের একীভূত হলে কী ধরনের করব্যবস্থা হবে, সে বিষয়টি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। বর্তমানে কোনো প্রতিষ্ঠান একীভূত হলে এর বিপরীতে কোনো কর দেওয়ার বিধান নেই।

১৯৮৪ সালের আয়কর অধ্যাদেশ দিয়ে বর্তমানে দেশের আয়কর ব্যবস্থা চলছে। এরই মধ্যে অনেক কিছুতে পরিবর্তন এসেছে। এসবের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে আইনেও পরিবর্তন আসছে।

বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর প্রথম মেয়াদে আয়কর, মূল্য সংযোজন কর (ভ্যাট) ও কাস্টমস আইন যুগোপযোগী করার উদ্যোগ নেয়। এর অংশ হিসেবে এরই মধ্যে ভ্যাট আইন করা হয়েছে। যদিও এটি এখনো কার্যকর হয়নি। এখন নতুন আয়কর আইন করা হচ্ছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে