অকার্যকর ইভিএম ধ্বংস করা হবে

রসিক নির্বাচনে ব্যবহারের প্রস্তুতি

  নিজস্ব প্রতিবেদক

২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০০:০০ | আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০০:১৪ | প্রিন্ট সংস্করণ

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে একটি ওয়ার্ডে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহারের প্রস্তুতি চলছে। এরই মধ্য দিয়ে নিজেদের তৈরি ইভিএমে ভোটগ্রহণের পথ প্রশস্ত হচ্ছে। এ ছাড়া ত্রুটিপূর্ণ ও অকার্যকর ইভিএম নষ্ট করার উদ্যোগ নিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। গত মঙ্গলবার নির্বাচন কমিশন সভায় এ সিদ্ধান্ত হয়।

ইসির ভারপ্রাপ্ত সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, ইভিএমগুলো অনেক পুরনো। বেশিরভাগই অকার্যকর হয়ে পড়ে আছে। নষ্টও হয়ে গেছে অনেকগুলো। তবে কিছু ইভিএম এখনো ভালো। এগুলো দিয়ে আগামীতে রংপুর সিটি করপোরেশনের একটি ওয়ার্ডে ভোট করার প্রস্তুতি নেওয়া হবে।

হেলালুদ্দীন আহমদ জানান, যেসব ইভিএম নষ্ট ও ত্রুটি সারিয়ে চালু করা যায়নি, সেগুলো ধ্বংস করা ছাড়া উপায় নেই। তবে কোন প্রক্রিয়ায় তা নষ্ট করা হবে, তা কারিগরি টিমের সহায়তা নিয়ে ঠিক করা হবে।

ইসি কর্মকর্তারা জানান, কোটি টাকা ব্যয়ে তিন দফায় বুয়েটের সহায়তায় সহস্রাধিক ইভিএম প্রস্তুত করে তৎকালীন এটিএম শামসুল হুদা কমিশন। বর্তমান কমিশন দায়িত্ব নেওয়ার পর নিজেদের তৈরি ইভিএম ব্যবহারের বিষয়ে চিন্তাভাবনা শুরু করে। কমিশনে এর প্রদর্শনীও হয়। পাশাপাশি একটি টেকনিক্যাল কমিটিও গঠন করা হয়।

কমিশন সভায় পুরনো ইভিএম আসন্ন কোনো স্থানীয় নির্বাচন ব্যবহার না করার পক্ষে বেশ কিছু যুক্তি তুলে ধরে কার্যপত্র উপস্থাপন করা হয়। এতে অকার্যকর ইভিএম নষ্টের প্রস্তাব করা হয়। প্রস্তাবে বলা হয়, বর্তমান ইভিএমগুলো ফিনিশড প্রোডাক্ট নয় এবং এগুলো ছয় বছরের বেশি পুরনো হওয়ায় কার্যক্ষমতা নেই। এ ছাড়া বিভিন্ন নির্বাচনে এগুলো ব্যবহারের সময়ে সৃষ্ট কারিগরি ত্রুটিগুলোর সমাধান করা হয়নি। ভবিষ্যতে ইভিএম ব্যবহারে কোনো কারিগরি ত্রুটি দেখা দিলে তা সমাধান করা দুরূহ হতে পারে। সুষ্ঠু নির্বাচনের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করতে পারে বিধায় সেগুলো ধ্বংসে ব্যবস্থা নেওয়া যায়।

২০১০ সালে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে একটি ওয়ার্ডে প্রথম ইভিএম ব্যবহার করা হয়। পরে নায়ায়ণগঞ্জের কয়েকটি ওয়ার্ড, নরসিংদী পৌরসভা ও কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের পুরো নির্বাচনই ইভিএমে করা হয়। তবে কাজী রকিবউদ্দীন আহমদ কমিশন রাজশাহী ও রংপুরে ছোট পরিসরে ইভিএম ব্যবহারের পর তা বন্ধ করে দেয়।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে