সড়কে ধান মাড়াই ও শুকানো হচ্ছে, দুর্ঘটনার আশঙ্কা

  আমতলী প্রতিনিধি

১৯ আগস্ট ২০১৭, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

জেলায় কৃষকরা ক্ষেত থেকে আউশধান কেটে পাকা সড়কে মেশিন রেখে মাড়াইয়ের কাজ সারছেন। আবার ধান শুকানোর জন্য চট-চাটাই রাস্তাতেই বিছিয়ে রাখছেন। এতে মানুষ ও যানবাহন চলাচলে বিঘœ সৃষ্টি হচ্ছে। প্রতিদিন ছোটোখাটো দুর্ঘটনাও ঘটছে। দুর্ঘটনার আশঙ্কায় গাড়িচালকরা সড়কে ধান মাড়াইয়ের কাজ বন্ধ করার দাবি জানিয়েছেন। পটুয়াখালী থেকে আমতলী হয়ে কলাপাড়া পর্যন্ত ৫০ কিলোমিটার রাস্তার প্রায় ৫০ স্থানে এমন ধান মাড়াইয়ের কাজ চলছে। সড়কের অধিকাংশ স্থান ধানের খড়ে ঢাকা পড়েছে। এ ছাড়া আমতলী-তালতলী, বরগুনা-বেতাগী, বরগুনা-বামনা, বরগুনা-পাথরঘাটা, বরগুনা-বাকেরগঞ্জ গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোসহ অভ্যন্তরীণ পাকা সব সড়কেই ধান মাড়াইয়ের কাজ করা হচ্ছে। সড়কগুলো দিয়ে প্রতিদিন কয়েক হাজার বাস, ট্রাক, পিকআপ, টেম্পো, অটোরিকশা, মাহেন্দ্র ও মোটরসাইকেল চলাচল করে।

স্থানীয় কৃষকরা ক্ষেত থেকে ধান কেটে সড়কে মাড়াইয়ের কাজ শেষে সড়কগুলোর দুপাশে খড় বিছিয়ে রেখে শুকিয়ে নিচ্ছেন। বৃষ্টি হলে খড়ের কারণে সড়কগুলো খুবই পিচ্ছিল হয়ে যায়। ঝুঁকি নিয়ে এর ওপর দিয়ে গাড়ি চলাচল করছে।

বাসচালক আবদুস সালাম, সানু মিয়া ও মজিবর অভিযোগ করে বলেছেন, সড়কের মোড়ে মোড়ে ধান রাখায় গাড়ি চালাতে সমস্যা হচ্ছে। সড়ক দখল করে ধান মাড়াই করলে সড়কের যেমন ক্ষতি হয়, তেমনি দুর্ঘটনারও আশঙ্কা থাকে।

কৃষকরা জানান, বৃষ্টির কারণে সব জায়গায় ভেজাভাব ও কাদা-পানি। তাই বাধ্য হয়ে সড়কে ধান রাখছেন তারা।

আমতলীর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. হেমায়েত উদ্দিন বলেন, সড়কে মানুষ ও যানবাহনের চলাচলে বিঘœ সৃষ্টি করা যাবে না। পরিদর্শন করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে