advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

‘লকডাউন’ ১৬ মে পর্যন্ত
ঈদের ৩ দিনের ছুটিতে থাকতে হবে কর্মস্থলে

নিজস্ব প্রতিবেদক
৬ মে ২০২১ ০০:০০ | আপডেট: ৫ মে ২০২১ ২২:২৫
advertisement

চলমান বিধিনিষেধ বা ‘লকডাউন’ ১৬ মে মধ্যরাত পর্যন্ত বাড়ল। গতকাল বুধবার এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। এ ছাড়া আসন্ন ঈদের ছুটিতে সবাইকে নিজ নিজ কর্মস্থলেই থাকতে হবে। সরকারি-বেসরকারি কলকারখানা বা কোনো প্রতিষ্ঠান সরকার নির্ধারিত তিন দিনের বেশি ঈদের ছুটি দিতে পারবে না বলেও সরকারের নির্দেশনা রয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, করোনা ভাইরাস মহামারীর মধ্যে সরকারি-বেসরকারি কর্মজীবীদের ঈদের ছুটির তিন দিন স্ব স্ব কর্মস্থলে থাকা বাধ্যতামূলক। এ ছাড়া জেলার ভেতরে গণপরিবহন চলাচলের অনুমতি দিয়েছে সরকার। তবে আন্তঃজেলা বাস চলাচল বন্ধ থাকবে। ফলে এক জেলার গাড়ি অন্য জেলায় যেতে পারবে না। আর সীমানা জটিলতায় ট্রেন ও লঞ্চ চলাচল পুরোপুরি বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া

হয়েছে। প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়, মাস্ক না পরলে কঠোর ব্যবস্থা নিতে পারবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। প্রয়োজনে মোবাইল কোর্টে সাজাও দেওয়া যাবে। মার্কেট বা শপিংমল স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত আদেশ না মানলে তাৎক্ষণিক বন্ধ করে দেওয়া হবে। এসব কঠোর বিধিনিষেধ আগের আদেশে ছিল না।

চলমান লকডাউন গতকালই শেষ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতির আশানুরূপ উন্নতি না হওয়ায় মেয়াদ বাড়াল সরকার। চাঁদ দেখা সাপেক্ষে ১৩ বা ১৪ মে ঈদুল ফিতর উদযাপিত হবে। ঈদের আগে কর্মদিবস পাওয়া যাবে মাত্র ৩টি- ৬ মে (আজ বৃহস্পতিবার), ৯ মে (রবিবার) ও ১১ মে (মঙ্গলবার)। এর মধ্যে ৭ ও ৮ মে সাপ্তাহিক ছুটি। ১০ মে শবেকদরের ছুটি। ১২ মে থেকে শুরু হচ্ছে ঈদের ছুটি। রোজা ২৯ দিন হলে ঈদুল ফিতর হবে ১৩ মে। রমজান মাসের ৩০ দিন পূর্ণ হলে ১৫ মে শনিবারও ঈদের ছুটি থাকবে।

advertisement