advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

ফেসবুক ইউটিউব হোয়াটসঅ্যাপের বিকল্প বাংলাদেশে তৈরির উদ্যোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক
২৫ জুলাই ২০২১ ১২:০০ এএম | আপডেট: ২৪ জুলাই ২০২১ ১১:৪৩ পিএম
advertisement

অনলাইন জগতে ‘আত্মনির্ভরশীলতা বাড়াতে’ বাংলাদেশ সরকার ফেসবুক, ইউটিউব ও হোয়াটসঅ্যাপের মতো বিকল্প সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম তৈরির পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। নারী উদ্যোক্তাদের সংগঠন উইমেন অ্যান্ড

ই-কমার্সের (উই) একটি ভার্চুয়াল প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠানে গতকাল শনিবার তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এ কথা জানান। জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, জুমের বিকল্প হিসেবে বাংলাদেশ সরকার

ইতোমধ্যে বৈঠক নামে একটি প্ল্যাটফর্ম তৈরি করেছে। এতে ১০০ জনের বেশি অংশগ্রহণ করা যায়। আমরা চেষ্টা করছি একবারে ৩০০ জনের সক্ষমতা অর্জনের। নিজেদের পরবর্তী পরিকল্পনার কথা উল্লেখ করতে গিয়ে

প্রতিমন্ত্রী বলেন, উইম্যান অ্যান্ড ই-কমার্সের যেমন নিজস্ব ফেসবুক গ্রুপ আছে, ওই রকম একটা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম নিজেদের জন্য তৈরি করার লক্ষ্য আছে আমাদের। এর মাধ্যমে আমাদের উদ্যোক্তারা নিজেদের

তথ্য-উপাত্ত এবং তাদের যোগাযোগের জন্য একটা অনলাইন মার্কেট প্লেস তৈরি করতে পারেন। এটা কোনো কারণে যেন বিদেশনির্ভর না হয়। এ জন্য আমরা ‘যোগাযোগ’ নামে একটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম তৈরির

উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, এখন ইউটিউবের মতো স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্মে উদ্যোক্তারা বিজ্ঞাপন দিয়ে থাকেন। তাতে অনেক টাকা চলে যায়। সরকার রাজস্ব হারায়। এই ভাবনা থেকে ইউটিউবের বিকল্প তৈরি

করা হচ্ছে। সেটিও আশা করছি অল্পদিনের মধ্যে তৈরি করতে পারব। এর সঙ্গে আমরা হোয়াটসঅ্যাপের বিকল্প হিসেবে ‘আলাপন’ নামে একটি অ্যাপ তৈরির উদ্যোগ নিয়েছি।

advertisement