advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

রাঙ্গাবালী ও বাউফলে ধর্ষণের শিকার দুই গৃহবধূ রাঙ্গাবালী ও বাউফল

(পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
১৯ অক্টোবর ২০২১ ১২:০০ এএম | আপডেট: ১৯ অক্টোবর ২০২১ ০১:৫৪ এএম
advertisement

পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় এক গৃহবধূকে গামছা দিয়ে চোখ-মুখ বেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় আওয়ামী লীগের এক নেতার বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় রবিবার রাতে রাঙ্গাবালী থানায় একটি মামলা করা হয়। রাতেই ওই মামলায় প্রধান আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

অন্যদিকে একই জেলার বাউফলে দুই সন্তানের জননী এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে প্রতিবেশী এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। রবিবার দুপুরে কালাইয়া ইউনিয়নের কর্পূরকাঠী গ্রামে এ ঘটনা

ঘটে। ওই দিন রাতে বাউফল থানায় একটি ধর্ষণ মামলা করেন গৃহবধূ।

রাঙ্গাবালীতে গ্রেপ্তার ব্যক্তির নাম হাসান মৃধা (৪২)। উপজেলার ছোটবাইশদিয়া ইউনিয়নের কোড়ালিয়া বাজার থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি ওই ইউনিয়নের ১ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। গতকাল সোমবার সকালে তাকে গলাচিপা জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করা হয়।

পুলিশ জানায়, শনিবার দুপুর সাড়ে ১২টায় ছোটবাইশদিয়া ইউনিয়নের ছোটবাইশদিয়া গ্রামে ধর্ষণের শিকার হন গৃহবধূ। ঘটনার পরদিন রবিবার রাতে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে হাসান মৃধার নাম উল্লেখ করে আরও একজনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করে মামলা করেন।

রাঙ্গাবালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেওয়ান জগলুল হাসান বলেন, এ ঘটনায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা হয়েছে। আসামিকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ভিকটিমের জবানবন্দির জন্য তাকেও আদালতে পাঠানো হয়েছে। ডাক্তারি পরীক্ষা করানো হবে। অপর আসামিকে শনাক্ত এবং গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

এদিকে মামলা ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বাউফলের ওই গৃহবধূর স্বামী একজন শ্রমিক। লম্পট হারুন হাওলাদার তাদের পাশের বাড়ির বাসিন্দা। রবিবার দুপুর সারে ১২টার দিকে ওই গৃহবধূর স্বামী গরুর জন্য ঘাস কাটতে বাড়ি থেকে বের হন। এ সময় ওই নারী দুই সন্তানকে ঘরে ঘুম পাড়িয়ে সংসারের কাজ করছিলেন। এ সময় হারুন এসে জরুরি কথা আছে বলে তাকে ডাক দেন। গৃহবধূ কথা শোনার জন্য কাছে গেলে তাকে একটি ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করেন।

বাউফল থানার ওসি আল মামুন বলেন, ওই গৃহবধূকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পটুয়াখালী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

advertisement
advertisement