advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement

নিহত আওয়ামী লীগ নেতার স্ত্রী বিনাভোটে চেয়ারম্যান

রাজবাড়ী প্রতিনিধি
৭ ডিসেম্বর ২০২১ ১২:০০ এএম | আপডেট: ৬ ডিসেম্বর ২০২১ ১০:০১ পিএম
advertisement

রাজবাড়ী সদর উপজেলার বানিবহ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান হতে চলেছেন দুর্বৃত্তদের গুলিতে নিহত আওয়ামী লীগ নেতা আবদুল লতিফ মিয়ার স্ত্রী শেফালী আক্তার। চতুর্থ ধাপে আগামী ২৬ ডিসেম্বর রাজবাড়ী সদর উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নের নির্বাচন হবে। এ নির্বাচনে বানিবহ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়ে একক প্রার্থী ছিলেন শেফালী।

রাজবাড়ী সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা স্বপন কুমার সাহা জানান, ১৪ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে মোট ৬২ জন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। বানিবহ ইউনিয়নে একমাত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দেন শেফালী আক্তার। যাচাই-বাছাইয়ে তার মনোনয়ন বৈধ বলে গণ্য হওয়ার পর সোমবার বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় তাকে চেয়ারম্যান পদে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়।

গত ১১ নভেম্বর রাজবাড়ী শহর থেকে মোটরসাইকেলে বাড়ি ফেরার পথে একদল দুর্বৃত্ত বানিবহ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান আবদুল লতিফ মিয়াকে গুলি করে হত্যা করে। তিনি আওয়ামী লীগের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী ছিলেন। হত্যার ঘটনায় নিহতের স্ত্রী শেফালী আক্তার বাদী হয়ে রাজবাড়ী সদর থানায় মামলা দায়ে করেন। পুলিশ এজাহারভুক্ত পাঁচ আসামিসহ মোট সাতজনকে গ্রেপ্তার করেছে।