advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement

নায়িকা শিমু হত্যা : বন্ধুসহ স্বামী নোবেল গ্রেপ্তার

কেরানীগঞ্জ প্রতিনিধি
১৮ জানুয়ারি ২০২২ ১০:২৯ এএম | আপডেট: ১৮ জানুয়ারি ২০২২ ০৩:০৯ পিএম
চিত্রনায়িকা রাইমা ইসলাম শিমু। পুরোনো ছবি
advertisement

বাংলা চলচ্চিত্রের অভিনয়শিল্পী রাইমা ইসলাম শিমু হত্যার ঘটনায় নায়িকার স্বামী নোবেল ও তার বন্ধু ফরহাদকে গ্রেপ্তার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। সেইসঙ্গে তার ব্যবহৃত গাড়িটিও জব্দ করা হয়েছে। গাড়িতে বেসরকারি টিভি চ্যানেল এটিএন বাংলার লোগো লাগানো রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

এর আগে গতকাল সোমবার সকাল ১০টায় কেরানীগঞ্জ থেকে নায়িকার বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবু সালাম মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেন। 

তিনি বলেন, সকাল ১০টার দিকে কেরানীগঞ্জ থেকে রাইমা ইসলাম শিমু নামে এক নারীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য তার মরদেহ মিটফোর্ড হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে আজ মঙ্গলবার দুপুরে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে প্রেস ব্রিফিংয়ের মাধ্যমে বিস্তারিত জানানো হবে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

শিমুর স্বামী নোবেলের ব্যবহৃত প্রাইভেটকারটি জব্দ করা হয়েছে। ছবি:আমাদের সময়

এদিকে, অভিনেত্রী শিমুর বোন ফাতেমা জানান, রোববার সকাল ১০টায় বাসা থেকে বের হয় শিমু। সন্ধ্যা ৭টায় এক বন্ধু শিমুকে ফোনে পাওয়া যাচ্ছে না বলে জানায়। পরে রাত ১১টায় কলাবাগান থানায় জিডি করা হয়।

এর পরের দিন সোমবার সন্ধ্যায় মিটফোর্ড হাসপাতালে নায়িকার লাশ শনাক্ত করেন তার ভাই শহিদুল ইসলাম খোকন। এরপর শিমুর স্বামী নোবেলকে প্রধান আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন তিনি। ওই মামলায় নোবেলের বন্ধু ফরহাদকেও আসামি করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ১৯৯৮ সালে কাজী হায়াতের ‘বর্তমান’ সিনেমায় প্রথম অভিনয় করেন শিমু। এরপর ২০০৪ সাল পর্যন্ত দেলোয়ার জাহান ঝন্টু, চাষি নজরুল ইসলাম, শরিফ উদ্দিন খান দিপুসহ আরও বেশ কিছু পরিচালকের প্রায় ২৫ সিনেমায় অভিনয় করেন তিনি। গেল দুই বছর ধরে এফডিসি যাতায়াত ছিল শিমুর। শিল্পী সমিতি কর্তৃক ১৮৪ জন ভোটাধিকার হারানো শিল্পীর মধ্যে ছিলেন তিনি।

ভোটাধিকার রক্ষার বিভিন্ন আন্দোলনেও দেখা যেত এই নায়িকাকে। এ ছাড়া টুকটাক নাটকেও কাজ করতেন। সাম্প্রতিক সময়ে ফ্যামিলি ক্রাইসিস নামে একটি ধারাবাহিক নাটকেও কাজ করেছেন শিমু।