advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ফরিদগঞ্জে ২ ভাইকে বেঁধে নির্যাতন

ফরিদগঞ্জ (চাঁদপুর) প্রতিনিধি
১৭ মে ২০২২ ১২:০০ এএম | আপডেট: ১৭ মে ২০২২ ০১:১৪ এএম
advertisement

জমির বিরোধে ফরিদগঞ্জ উপজেলার রুস্তমপুর বাজারে প্রকাশ্যে দুই ভাইকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করা হয়েছে। গত শুক্রবার সাপ্তাহিক হাটবারে এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতনের একটি ছবি গত শুক্রবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়। এতে দেখা যায়, একদল লোক দুই ব্যক্তিকে বেঁধে বেদম মারধর করছে। শুধু হাতেই নয়, লোহার রড দিয়েও পেটানো হচ্ছে তাদের। দুই ব্যক্তি বারবার বাঁচার জন্য আকুতি জানাচ্ছেন। কিন্তু তাতেও মন গলেনি প্রতিপক্ষের। গত রবিবার বিষয়টি নজরে আসে পুলিশের। ফরিদগঞ্জ থানাপুলিশ তিনজনকে গ্রেপ্তার করে।

advertisement

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সার্কেল) সোহেল মাহমুদ জানান, গতকাল সোমবার সকালে অভিযান চালিয়ে ওই ঘটনায় জড়িত পাঁচজনের মধ্যে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তারা হলেন- দেলোয়ার হোসেন (৬৫), লোকমান হোসেন (৬৮) ও

মাহবুব আলম সোহেল (৩২)। অন্য অভিযুক্তরা গা ঢাকা দিয়েছে। তারা হলেন- মোজাম্মেল হোসেন (৬০) ও মোহাম্মদ হোসেন (৩৮)। তাদেরও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

নির্যাতনের শিকার দুই ভাই ফয়েজ মৃধা ও শেখ ফরিদ অভিযোগ করেন, জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে তাদের ওপর এমন অমানসিক নির্যাতন চালানো হয়েছে। বাড়ির সামনে জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলছে প্রতিপক্ষের সঙ্গে। সেই জমির মালিকানা দাবির একপর্যায়ে মোজাম্মেল হোসেন বাবুল এবং তার সঙ্গীরা তাদের ওপর হামলা করে। তবে নির্যাতনের ঘটনায় জড়িতদের স্বজন বৃদ্ধ মনসুর আহমেদ জানান, প্রতিনিয়ত গালাগাল আর উসকানিমূলক নানা আচরণ এবং পারিবারিক কবরস্থানের পবিত্রতা নষ্ট করার কারণে অধৈর্য হয়ে শেষ পর্যন্ত এই দুই ভাইকে শায়েস্তা করতে তাদের মারধর করা হয়েছে। স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী সোহেল ও জুয়েলও একই কথা জানান। তারা জানান, ফয়েজ মৃধা ও শেখ ফরিদ মূলত মামলাবাজ। সামান্য জমির মালিকানা দাবি করে প্রায়ই গালাগাল এবং উচ্ছৃঙ্খল আচরণ করে এ দুই ভাই। তাদের অত্যাচারে এলাকাবাসীও অতিষ্ঠ।

এদিকে ঘটনার শিকার ফয়েজ মৃধা বাদী হয়ে পাঁচজনকে অভিযুক্ত করে ফৌজদারি কার্যবিধির ১৫৪ ধারায় ফরিদগঞ্জ থানায় মামলা করেন। এ মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া তিনজনকে গতকাল চাঁদপুরের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়।

advertisement