advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ইভিএমের বিপক্ষেই কথাবার্তা বেশি হয়েছে : সিইসি

নিজস্ব প্রতিবেদক
২৮ জুন ২০২২ ০৬:১১ পিএম | আপডেট: ২৮ জুন ২০২২ ০৯:৫৩ পিএম
প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল। পুরোনো ছবি
advertisement

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, ‘আমরা যখন দায়িত্ব নেই, কিছুদিন পর থেকেই ইভিএম নিয়ে কথাবার্তা পত্র-পত্রিকায় চাউর হয়েছিল। এর বিপক্ষেই বেশি কথাবার্তা হয়েছে। আমাদের শুরু থেকেই ইভিএম সম্পর্কে সে রকম ধারণা ছিল না। আমাদের ব্যক্তিগত ধারণাও ছিল না। আমরা ইতোমধ্যেই ইভিএম নিয়ে অনেক কাজ করেছি। এখন আমাদের মোটামুটি ধারণা আছে।’

আজ মঙ্গলবার ইভিএম নিয়ে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে আয়োজিত বৈঠকের সূচনা বক্তব্যে এসব কথা বলেন সিইসি কাজী হাবিবুল আউয়াল।

advertisement

সিইসি বলেন, ‘এর আগে আমরা দুটি সংলাপ করেছি। অনেকেই কিন্তু ইভিএমের পক্ষে বলেছেন। অনেকে সল্যুউশন (সমাধান) দিয়ে বলেছেন, আরও উন্নত প্রযুক্তি দিয়ে যদি ইভিএম ক্রয় করা যায় তাহলে আরও ভালো হয়। আবার অনেকে সরাসারি বলেছেন- আমরা ইভিএমে নির্বাচনে যাব না।’

ইভিএমে নির্বাচনের ব্যাপারে হাবিবুল আউয়াল বলেন, ‘আমরা আগেই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম যে, রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে আলোচনা করেই সিদ্ধান্ত নেব। কোন পদ্ধতিতে নির্বাচন করব সেটা আমাদেরই সিদ্ধান্ত নিতে হবে।’

সিইসি বলেন, ‘আজকে বড় বড় দলের অনেকেই এসেছেন। মাননীয় মন্ত্রী (ওবায়দুল কাদের) স্বয়ং নিজেই এসেছেন, যেটা আমি প্রত্যাশাও করিনি। আজকে আমাদের আলোচনা ইভিএমেরই মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকবে। আপনারা ইভিএমের পক্ষে-বিপক্ষে বলতে পারেন। আমরা আপনাদের কথাগুলো শুনব। আমরা আপনাদের আলোচনা শুনে পরবর্তীতে আমরা বস্তুনিষ্ঠ সিদ্ধান্তে উপনীত হব। ’

আজ তৃতীয় দফায় ও শেষ দফায় ইভিএম নিয়ে ১৩টি রাজনৈতিক দলকে বৈঠকে আসার আমন্ত্রণ জানিয়েছিল ইসি। এই দলগুলোর মধ্যে নয়টি দল বৈঠকে অংশ নিয়েছে। এর আগে গত ১৯ জুন অনুষ্ঠিত বৈঠকে দুটি দল এবং ২১ জুন অনুষ্ঠিত বৈঠকে বিএনপিসহ পাঁচটি দল অংশ নেয়নি।

advertisement