advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

জ্বালানি তেলের দামবৃদ্ধি
রাজবাড়ীতে সড়কে কমেছে বাস, নেওয়া হচ্ছে বাড়তি ভাড়া

রাজবাড়ী প্রতিনিধি
৬ আগস্ট ২০২২ ০৫:৪৮ পিএম | আপডেট: ৬ আগস্ট ২০২২ ০৫:৪৮ পিএম
রাজবাড়ীতে জ্বালানি তেলের দামবৃদ্ধির পর সড়কে বাসের সংখ্যা কমে গিয়েছে, ভোগান্তিতে পড়েছেন যাত্রীরা। ছবি: আমাদের সময়
advertisement

জ্বালানি তেলের দামবৃদ্ধিতে ভাড়া জটিলতায় রাজবাড়ীতে দূরপাল্লা ও লোকাল রুটে কমেছে বাস চলাচল। আজ শনিবার সকাল ১১টা পর্যন্ত রাজবাড়ী থেকে দূরপাল্লার বাস রাবেয়া, জামান পরিবহন সঠিক সময়ে ছেড়ে গেলেও শিডিউল বিপর্যয়ে পড়েছে এমএম, সোহার্দ্যসহ অন্যান্য পরিবহন। এ ছাড়া রাজবাড়ী-দৌলতদিয়া, রাজবাড়ী-ফরিদপুর, রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া রুটে সীমিত আকারে চলছে লোকাল বাস।

এদিকে, সরকার বা পরিবহন সেক্টর দ্বারা ভাড়া নির্ধারণ না করলেও দূরপাল্লার পরিবহন এমএম ও লোকাল রুটের বাসগুলো যাত্রীদের থেকে বাড়তি ভাড়া আদায় করছে।

advertisement

পরিবহন খাতের দায়িত্বশীলরা বলছেন, যাত্রীদের বুঝিয়ে কিছু বাড়তি ভাড়া নেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়া অনেক পরিবহন কর্তৃপক্ষ তাদের গাড়ি চলাচল বন্ধ রেখেছে। ভাড়া নির্ধারণ না হলে গাড়ি বন্ধ রাখবেন তারা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক লোকাল রুটের বাসের কয়েকজন সুপারভাইজার ও চালক বলেন, প্রতিদিন রাজবাড়ী থেকে কুষ্টিয়া, ফরিদপুর ও দৌলতদিয়া রুটে সব মিলিয়ে ১৬০টি ট্রিপ হয়। শনিবার সকাল ১১টা পর্যন্ত প্রায় ৭০টি ট্রিপের মধ্যে ছেড়ে গেছে ৩০-৩৫টি ট্রিপ। ভাড়া বেশি চাইলে যাত্রীরা চার্ট দেখতে চান। কিন্তু এখনও ভাড়ার চার্ট হয়নি। তাই অনেক গাড়ি বন্ধ আছে। তবে যেসব গাড়ি চলাচল করছে, তারা যাত্রীদের বুঝিয়ে সামান্য কিছু টাকা বেশি নিচ্ছে।

বাসযাত্রী আলিম মিয়া বলেন, তিনি আগেই টিকেট নিয়েছিলেন। সে ভাড়াতেই যাচ্ছেন। আগামীতে কি হবে বুঝতে পারছেন না। শুধু তেল না, এখন সব দ্রব্যমূল্যের ঊর্দ্ধগতি। চাপ পড়ছে সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষের ওপর।

আরেক যাত্রী হুমায়ুন কবির বলেন, রাজবাড়ী থেকে ফরিদপুরের ভাড়া আগে ৫০ টাকা নেওয়া হতো। কিন্তু আজ ৬০ টাকা নেওয়া হচ্ছে, চার্ট ছাড়াই। তাছাড়া দৌলতদিয়ার ভাড়াও বাড়তি নিচ্ছে বাসগুলো। সব ঝামেলা সাধারণ মানুষের।

দূরপাল্লার এমএম পরিবহনের ব্যবস্থাপক আলম বলেন, দিনে তাদের ছয়টি ট্রিপের মধ্যে সকাল থেকে এখন পর্যন্ত দুটি ট্রিপ ছেড়ে গেছে। আগে রাজবাড়ী থেকে ঢাকায় পর্যন্ত ৩০০ টাকা ভাড়া নেওয়া হলেও আজ ৩৫০ টাকা নেওয়া হচ্ছে। তবে সেটা যাত্রীদের বুঝিয়ে নিচ্ছেন বলে জানান তিনি।

রাজবাড়ী বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. মুরাদ হাসান বলেন, এখনও নতুন ভাড়া নির্ধারণ হয়নি। কেন্দ্রের সিদ্ধান্তের আলোকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে তেলের দাম যেহেতু বেশি, সে কারণে হয়তো কিছু মালিক বাস চলাচল বন্ধ রাখবেন। তবে তারা (মালিক সমিতি) চান সব গাড়ি রাস্তায় চলুক। তেলের দাম বাড়লেও আজও রাজবাড়ী থেকে দূরপাল্লার অনেকগুলো গাড়ি ছেড়ে গেছে বলে জানান তিনি।

advertisement