advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবি, ১৯ জেলে উদ্ধার 

তালতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি
১৯ আগস্ট ২০২২ ০৭:০৯ পিএম | আপডেট: ১৯ আগস্ট ২০২২ ০৭:০৯ পিএম
বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবি। ছবি : সংগৃহীত
advertisement

উত্তাল বঙ্গোপসাগরে ঝড়ের কবলে পড়ে ১৯ জেলেসহ এফবি মায়ের দোয়া ও এফবি আল্লাহর দান নামের দুটি মাছ ধরার ট্রলার ডুবে গেছে। দুই ট্রলারে থাকা ১৯ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করে স্থানীয় জেলেরা। তবে সব জেলেরাই গুরুতর অসুস্থ।

আজ শুক্রবার রাত ১২ টার দিকে মায়ের দোয়া ও সকাল ১০ টার দিকে আল্লাহর দান ট্রলার দুটি গভীর বঙ্গোপসাগরে ডুবে যায়। ট্রলার দুটির  মালিক মজনু মিয়া ও জাফর সিকদার। তাদের বাড়ি তালতলী উপজেলার নিদ্রা এলাকায়। উদ্ধার হওয়া ১৯ জেলের পরিচয় এখনো জানা যায়নি। 

advertisement 3

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ১৩ জেলেসহ গত বুধবার দুপুরে তালতলীর নিদ্রা উপকূল থেকে মাছ ধরার জন্য সাগরের উদ্দেশে রওনা হয়েছিল মায়ের দোয়া ট্রলারটি। কিন্তু গভীর বঙ্গোপসাগরের পৌঁছাতেই খবর পাওয়া যায় সাগরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত। সাগরও উত্তাল হতে থাকে। পরে সবার সিদ্ধান্ত হয় ট্রলার নিয়ে উপকূলে ফেরার। পরে রাত ১২ টার দিকে ফেরার পথে ঢেউয়ের আঘাতে ট্রলারটি উল্টে যায়। এ ঘটনায় ১৩ জেলে পানিতে পড়ে যায়। এর পর টানা ১০ ঘন্টা ওই জেলেরা লাইভ জ্যাকেট নিয়ে সাগরে ভাসতে থাকে। পরে স্থানীয় জেলেরা ২টি ট্রলার নিয়ে এগিয়ে এসে সবাইকে উদ্ধার করে। উদ্ধার হওয়া জেলেরা খুব অসুস্থ। 

advertisement 4

এদিকে সকাল ১০ টার দিকে গভীর বঙ্গোপসাগর থেকে উপকূলে ফেরার পথে ঝড়ের কবলে পড়ে এফবি আল্লাহর দান ট্রলারটি। এ সময় ঝড়ের কবলে পড়ে ট্রলারটি ডুবে যায়। ডুবে যাওয়া ট্রলারের জেলেদের সাগরে ভাসতে দেখে পাশবর্তী একটি ট্রলার ওই ৬ জেলেকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে। এরইমধ্যে অন্য জেলেরা ট্রলার উদ্ধারের কাজ শুরু করেছে।

এফবি আল্লাহর দান ট্রলারের মালিক মজনু মিয়া জানান, জাল, তেল ও অনন্য মালামালসহ গত তিন দিন আগে সাগরে রওনা হয় ট্রলারটি। ঝড়ের কবলে পড়ে ট্রলারটি ডুবে যায়। এছাড়াও এফবি মায়ের দোয়া নামক আরও একটি ট্রলার রাত ১২টার দিকে ডুবে যায়। সেটা প্রায় দেড় কোটি টাকার মতো ক্ষতি হয়েছে।

তিনি আরও বলেন উদ্ধার হওয়া সব জেলে এখন পাথরঘাটায় আছে। সবাই অসুস্থ হয়ে আছেন । তাদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করছি।

ফকিরহাটের সকিনা জোনের কোস্ট গার্ডের কর্মকর্তা কমান্ডার মো. সুলতান আলী বলেন, ‘এ বিষয়ে আমি কিছু জানি না । খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে।

advertisement