advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

কর্মী উন্নয়নে সৌদির সঙ্গে বাংলাদেশের চুক্তি স্বাক্ষর

সৌদি আরব প্রতিনিধি
২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২ ০৯:৩০ পিএম | আপডেট: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২ ০৯:৩০ পিএম
সৌদির সঙ্গে বাংলাদেশের চুক্তি স্বাক্ষর। ছবি: সংগৃহীত
advertisement

সৌদি আরবে মানব সম্পদ ও সামাজিক উন্নয়ন বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে বাংলাদেশের জনশক্তি কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরোর (বিমইটির) চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে। আজ বুধবার সৌদি আরবের বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে বাংলাদেশি কর্মীদের স্কিল ভেরিফিকেশন বিষয়ে এক চুক্তি স্বাক্ষর হয়। 

নতুন চুক্তির আওতায় সৌদি আরবে আসতে ইচ্ছুক বাংলাদেশি দক্ষ/ আধা দক্ষ কর্মীদের বিভিন্ন বিষয়ে দক্ষতা যাচাই করে সনদ দেওয়া হবে। সনদের মেয়াদ হবে পাঁচ বছর। এ সনদ থাকায় সৌদি আরবে সংশ্লিষ্ট বিষয়ে চাকুরি পাওয়া সহজ হবে। এছাড়াও কর্মীরা দক্ষতা অনুযায়ী বেতন ভাতা পাবেন। এ সনদের মাধ্যমে একবার সৌদি আরব আসলে আর কোনো পরীক্ষা দেওয়ার প্রয়োজন হবে না প্রবাসী কর্মীদের।

advertisement

সৌদি আরবের মানব সম্পদ ও সামাজিক উন্নয়ন বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অধীনে তাকামল এ স্কিল ভেরিফিকেশনের কাজ করবে। প্লাম্বিং, ইলেকট্রিশিয়ান, মেকানিক, ওয়েল্ডিং, কার্পেন্টার পেইন্টার, প্লাস্টারার, বিল্ডারসহ মোট ২৩টি বিষয়ে এ স্কিল ভেরিফিকেশন দেওয়া হবে।

advertisement 4

সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী এ চুক্তি স্বাক্ষর বিষয়ে বলেন, ‘দীর্ঘ প্রচেষ্টার পর এ চুক্তিটি স্বাক্ষর হয়েছে। আশা করি আগামীতে বাংলাদেশ থেকে দক্ষ/ আধা দক্ষ কর্মীরা সনদ নিয়ে সৌদি আরবে আসবে। যার ফলে সৌদি আরবে ভালো চাকুরি পাওয়া সহজ হবে তাদের। সৌদি আরব থেকে আমাদের রেমিট্যান্স প্রবাহ আরও বৃদ্ধি পাবে।’

বাংলাদেশে চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিএমইটির মহাপরিচালক মো. শহীদুল আলম, প্রবাসী কল্যাণ সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন, বাংলাদেশে নিযুক্ত সৌদি আরবের রাষ্ট্রদূত ঈসা বিন ইউসুফ আল দুহাইলান ও প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী ইমরান আহমদ।

advertisement