advertisement
advertisement
advertisement

কাতারের পোশাক নিয়ে ব্যঙ্গ, ক্ষমা চান ধারাভাষ্যকার

র্স্পোটস ডেস্ক
৩০ নভেম্বর ২০২২ ১১:৪৭ এএম | আপডেট: ৩০ নভেম্বর ২০২২ ১১:৪৭ এএম
ছবি: সংগৃহীত
advertisement

জার্মানি ও স্পেনের খেলার ধারাভাষ্য দেওয়ার সময় গত রোববার কাতারের পুরুষদের ঐতিহ্যবাহী পোশাক নিয়ে জার্মানির প্রাক্তন ফুটবলার জান্দ্রো ভাগনার উপহাস করেন। ওই পোশাককে তিনি গোসলের আগে-পরে ব্যবহৃত ঢিলা গাউনের সঙ্গে তুলনা করেন।

জার্মানির সরকারি প্রচার মাধ্যম জেডডিএফ চ্যানেলে বিশ্বকাপের গুরুত্বপূর্ণ ওই ম্যাচের ধারাভাষ্য দেওয়ার এক পর্যায়ে ভাগনার বলেন, তিনি ভেবেছিলেন যে আল বায়াত স্টেডিয়ামের এক প্রান্ত জার্মান দর্শকে পরিপূর্ণ।

advertisement

‘কিন্তু এর পরেই আমি অনুধাবন করলাম যে সেটা কাতারি বাথরোব’ কাতারের ঐতিহ্যবাহী পোশাক ‘থাউব’ নিয়ে এমন মন্তব্য করেন বায়ার্ন মিউনিখের আক্রমণভাগের প্রাক্তন এই খেলোয়াড়।

advertisement 4

থাউব হলো লম্বা হাতাসহ সাদা পূর্ণ দৈর্ঘ্যের পোশাক, যা কাতারসহ মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে পরিধান করে। কাতারিদের কাছে এটা জাতীয় মর্যাদার প্রতীক। প্রত্যেক আরব রাষ্ট্রের নিজস্ব থাউবের প্রচলন রয়েছে। পোশাক নিয়ে ভাগনারের এমন মন্তব্যের পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সমালোচনা শুরু হয়। অনেকে তার মন্তব্যকে ‘বর্ণবাদী’ বলে জেডডিএফ টিভি চ্যানেলের টুইটারে সমালোচনা করেন।

এমন পরিস্থিতিতে গত সোমবার বিবৃতি দিয়ে ভাগনার তার মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চান। বিবৃতি টুইটারে শেয়ার করে তার মন্তব্য ছিল ‘অসঙ্গত ও অনুপযুক্ত’। তিনি বলেন, তার মন্তব্যের কারণে কেউ আঘাত পেয়ে থাকতে পারেন, তবে সেটা ইচ্ছাকৃত ছিল না।

জার্মান প্রচার মাধ্যমটিও তার এই মন্তব্যকে ‘দুঃখজনক’ অভিহিত করে জানায় যে, খেলার এক আবেগঘন মুহূর্তে প্রাক্তন ফুটবলার এমন মন্তব্য করেছেন। তবে এমন মন্তব্য করার জন্য তাকে অনুমতি দেওয়া হয়নি।

উল্লেখ্য, হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর জার্মান ও স্পেনের খেলা ১-১ গোলে ড্র হয়।

advertisement