advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

লাশ পোড়ানোর আরও আসামির রিমান্ড মঞ্জুর

লালমনিরহাট প্রতিনিধি
২৩ নভেম্বর ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ২২ নভেম্বর ২০২০ ২২:০১
advertisement

লালমনিরহাটের বুড়িমারীতে গণপিটুনি দিয়ে আবু ইউনুস মো. সাহিদুন্নবী জুয়েলকে হত্যার পর লাশ পোড়ানোর ঘটনায় দায়ের করা তিন মামলায় রাসেল ইসলাম রাজ ওরফে বিশুর পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। এ নিয়ে ১৩ জনের রিমান্ড মঞ্জুর করা হলো।

গতকাল রবিবার আমলি আদালত ৩-এর বিচারক সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট বেগম ফেরদৌসী বেগম এ রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেন।

এর আগে শুক্রবার (২০ নভেম্বর) বিকালে আদালতে সোপর্দ করে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রাসেল রাজকে পাঁচ দিনের রিমান্ড চেয়ে আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ পরিদর্শক মাহমুদুন্নবী।

রাসেল রাজ পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নের জুম্মাপাড়া এলাকার হামিদুল ইসলামের ছেলে। একই মামলায় শনিবার রাতে পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নের বামনদল এলাকার পরমদ্দিনের ছেলে আবু কালাম ওরফে গামছা কালামকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওমর ফারুক বলেন, সাহিদুন্নবী জুয়েল হত্যা মামলায় দায়ের করা তিন মামলার অজ্ঞাতনামীয় আসামি রাসেল রাজকে বৃহস্পতিবার (১৯ নভেম্বর) রাতে পাটগ্রাম কলেজ মোড় এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনটি মামলার তদন্তে সম্পৃক্ততার প্রমাণ পাওয়ায় রাসেলকে গ্রেপ্তার করা হয়। ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদন জানানো হয়।

এ ছাড়া কালামকে বিকালে আদালতে সোপর্দ করে পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। এ নিয়ে আলোচিত এ ঘটনার তিন মামলায় মোট ৩৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হলো। যার মধ্যে ১৩ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে রিমান্ড নিয়ে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশ। এর মধ্যে মূল হোতা বুড়িমারী ইউনিয়ন শ্রমিক লীগের সভাপতি আবুল হোসেন ওরফে হোসেন ডেকোরেটর এবং মসজিদের খাদেম জোবেদ আলীসহ চারজন স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন বলেও জানান ওসি ওমর ফারুক।

গত ২৯ অক্টোবর বিকালে পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী বাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে হামলার ঘটনা ঘটে। নিহত যুবক সাহিদুন্নবী জুয়েল রংপুর শহরের শালবন মিস্ত্রিপাড়ার আবদুল ওয়াজেদ মিয়ার ছেলে। তিনি রংপুর ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের সাবেক গ্রন্থাগারিক এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সাবেক ছাত্র। গত বছর চাকরিচ্যুত হওয়ায় কিছুটা মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে ফেলেন তিনি।

advertisement