advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

নাশকতার পরিকল্পনাকালে আটক ১৪ জামায়াত নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

বকশীগঞ্জ (জামালপুর) প্রতিনিধি
২১ অক্টোবর ২০২১ ১০:২৮ এএম | আপডেট: ২১ অক্টোবর ২০২১ ১০:৩২ এএম
প্রতীকী ছবি
advertisement

জামালপুরের বকশীগঞ্জে মসজিদে বসে গোপন বৈঠকে নাশকতা ও সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টের পরিকল্পনাকালে আটক জামায়াতে ইসলামীর ১৪ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গতকাল বুধবার বিকেল ৪টার দিকে বকশীগঞ্জ পৌর এলাকার সীমারপাড় জামে মসজিদ থেকে জেলা জামায়াত ইসলামীর আমীরসহ ১৬ জনকে আটক করা হয়। এ সময় একটি সাদা রঙের প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়।

পুলিশ জানায়, বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শফিকুল ইসলাম সম্রাটের নেতৃত্বে এই অভিযান চালানো হয়। পরে রাতে জামালপুরের পুলিশ সুপার নাছির উদ্দিন আহমেদ তাদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করেন। জিজ্ঞাসাবাদে জামায়াত নেতাদের সঙ্গে সম্পৃক্ততা না থাকায় আটককৃতদের মধ্যে একজন ভ্যানচালক ও আরেকজন সাধারণ মুসল্লিকে ছেড়ে দেওয়া হয়। বাকি ১৪ জনের বিরুদ্ধে নাশকতার পরিকল্পনার সত্যতা পায় পুলিশ।

যাদের আটক করা হয়েছে তারা হলেন- জামালপুর জেলা জামায়াতে ইসলামীর আমীর বকশীগঞ্জ উপজেলার নিলক্ষিয়া নতুন পাড়া গ্রামের বাসিন্দা অ্যাডভোকেট নাজমুল হক সাঈদী (৬০), উপজেলা জামায়াতে ইসলামীর আমীর বাট্টাজোড় এলাকার আদিল ইবনে আওয়াল (৫০), সক্রিয় জামায়াত কর্মী আইরমারী গ্রামের মাহাবুব জামি (৪৮), পৌর শহরের টিএনটি রোডের আবদুল আজিজ (৫১), সীমারপাড় গ্রামের মোহাম্মদ আলী (৬০), নয়াপাড়া গ্রামের সুলতান (৪৮), উজান কলকীহারা গ্রামের আবদুল মালেক (৪৭), মালিরচর মৌলভীপাড়া গ্রামের রাসেল মাহমুদ (৪৫), ময়মনসিংহ জেলার হালুয়াঘাট উপজেলার কায়রা হাটি এলাকার খালেকুজ্জামান (২১), আনিছুজ্জামান (২২), ছোট দাসপাড়া এলাকার নিয়ামত উল্লাহ (৩৪), পাগলা থানার দক্ষিণ হারিনা গ্রামের ইসমাইল হোসেন (৪২), মেলান্দহ উপজেলার তেঘরিয়া গ্রামের জুলফিকার আলী (৪৫) ও নান্দাইল উপজেলার কাকচর গ্রামের আশরাফুল আলম (৩৫)।

বিষয়টি নিশ্চিত করে জামালপুরের পুলিশ সুপার নাছির উদ্দিন আহমেদ জানান, মসজিদে বসে নাশকতা ও সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টের পরিকল্পনা করছিল জামায়াত নেতাকর্মীরা। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তারা দিনভর পুলিশের নজরদারিতেই ছিল। পরে অভিযান চালিয়ে পুলিশ তাদেরকে আটক করে। আজ বৃহস্পতিবার সকালে তাদেরকে আদালতে সোপর্দ করা হবে।

advertisement
advertisement