advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

গণহত্যার ডাক ভারতে ধর্মগুরু গ্রেপ্তার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
১৭ জানুয়ারি ২০২২ ১২:০০ এএম | আপডেট: ১৭ জানুয়ারি ২০২২ ১২:৪৪ এএম
advertisement

সংখ্যালঘুদের গণহত্যার ডাক দেওয়ার অভিযোগে গ্রেপ্তার হয়েছেন ভারতের বিতর্কিত ধর্মগুরু যতি নরসিংহানন্দ। গত শনিবার রাতে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর আগে শুক্রবার একই মামলায় গ্রেপ্তার হয়েছিলেন ওয়াসিম রিজভি ওরফে জিতেন্দ্র নারায়ণ সিং ত্যাগী নামে আরেক অভিযুক্ত। খবর এনডিটিভির।

ভারতের উত্তরাখ- রাজ্যের হরিদ্বারে অনুষ্ঠিত ‘ধর্মীয় সম্মেলনে’ নির্দিষ্ট একটি সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানুষকে গণহত্যার ডাক দেওয়ায় সৃষ্টি হয়েছিল চাঞ্চল্যের। ক্ষোভ আর ঘৃণা উগরে দেওয়া সেই ধর্মীয় সম্মেলনের একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়ার পর ব্যাপক সমালোচনার মুখে দেশটির সর্বোচ্চ আদালত হস্তক্ষেপ করে।

পরে হরিদ্বারে আয়োজিত ধর্মীয় সম্মেলনে উগ্র ও সহিংস ভাষণের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে ভারতের রাজনৈতিক দল তৃণমূল কংগ্রেস। দলটির মুখপাত্র সাকেত গোখলে উত্তরাখ-ের জোয়ালাপুর থানায় ওই সভার উদ্যোক্তা ও বক্তাদের বিরুদ্ধে একটি এফআইআর দায়ের করেন। এ ঘটনায় সমালোচনার মুখে পড়ে ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপি।

হরিদ্বারে সহিংস ও উগ্র ভাষণ দেওয়ার মামলায় দায়ের হওয়া এফআইআরে ১০ জনেরও বেশি ব্যক্তির নাম রয়েছে। এর মধ্যে নরসিংহানন্দ, জিতেন্দ্র ত্যাগী ও অন্নপূর্ণা উল্লেখযোগ্য।

বুধবার ভারতের সুপ্রিমকোর্ট উত্তরাখ- সরকারকে ১০ দিনের মধ্যে তদন্তের বিষয়ে প্রতিবেদনে জমা দেওয়ার নির্দেশ দেয়। এর পরই নড়েচড়ে বসে উত্তরাখ- পুলিশ। তারই ফলে ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে দুজন শীর্ষ অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হলো।