advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

কাতার বিশ^কাপ নিয়ে রিভালদোর আশা

ক্রীড়া ডেস্ক
৩ জুলাই ২০২২ ১২:০০ এএম | আপডেট: ৩ জুলাই ২০২২ ১২:৩০ এএম
advertisement

জাপান-কোরিয়া আসর বিজয়ের ২০ বছর পূর্তি উদ্যাপন করেছেন সাবেক ব্রাজিলিয়ানরা। সিবিএফের এ আয়োজনে কাফুর হাতে ওই সোনালি ট্রফিটা দেখতেই হয়তো নিজেদের স্মৃতির ঝাঁপি খুলে দিয়েছিলেন সবার প্রিয় ব্রাজিলিয়ান ফেনোমেনন রোনালদো। ২০০২ বিশ্বকাপজয়ী এ ফুটবলার বলেন, ‘সেটি ছিল স্বপ্নের মতো। শুধু আমি নই, দলের সবার জন্য এটি ছিল স্বপ্নপূরণ। এখানে সবাইকে একসঙ্গে দেখে অনেক কথা মনে হচ্ছে। আমাদের জীবনের সেরা মুহূর্ত ছিল সেটি।’

সাবেক সতীর্থদের পেয়ে নিজেদের স্মৃতিগুলোও হয়তো আরও একবার ঝালাই করে নিয়েছেন সবাই গল্পের ছলে। রোনালদো, রিভালদো, এডিলসন, ডেনিলসন, লুইসাও, মার্কোস সবার সঙ্গেই নিজের আনন্দটা ভাগ করে নিয়েছেন তাদের বিশ্বজয়ী অধিনায়ক কাফু। কাফু বলেন, ‘ওই মুহূর্তটা কোনো দিন ভুলব না। সেটি ভোলার মতো নয়। আমার এই জীবনে এর চেয়ে আনন্দের সময় আর আসেনি। আমি আশা করব, ব্রাজিলের এবারের দলটাও আমাদের সেই আনন্দে ভাসাবে।’

advertisement 3

দেশটা যখন ব্রাজিল, বিশ্বকাপে রানার্সআপ হওয়াটাও সেখানে মহাপাপ। তাই তো বিশ্বজয়ী কিংবদন্তি রিভালদোর আশা- ২০ বছরের আক্ষেপ ঘুচবে এবারই। তিতের ওপর যে অগাধ আস্থা তার। রিভালদো বলেন, ‘তিতে এই দলটিকে এক সুতোয় গেঁথেছে। সে একজন মাস্টারমাইন্ড, আমার পূর্ণ আস্থা আছে তার ওপর। আমি আশা করব, সে ব্রাজিলের সেরাদেরই নিয়েই দল গড়বে।’

advertisement 4

বিশ্বকাপ এলেই একজন করে নায়ক খুঁজতে থাকেন সেলেসাও সমর্থকরা। রোনালদোর পর, যা আর পাওয়া যায়নি কারও মাঝেই। তবে ফেনোমেনন নিজে মনে করেন, নেইমারের সে প্রতিভা আছে। কাতার মিশনে তার হাত ধরেই সফলতা আসবে বলে বিশ্বাস রোনালদোর।

advertisement