advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

বাবার সঙ্গে অভিমান করে ছেলের আত্মহত্যা

শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি
২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ ০৯:২৩ পিএম | আপডেট: ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ ০৯:২৩ পিএম
প্রতীকী ছবি
advertisement

গাজীপুরের শ্রীপুরে নাজিম মোল্লা (২০) নামে এক তরুণের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে উপজেলার কেওয়া পূর্বখণ্ড গ্রামের কাজিমুদ্দিনের বাড়ি থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত নাজিম গোপালগঞ্জ জেলার কাশিয়ানি উপজেলার বেথুরী গ্রামের পান্নু মোল্লার ছেলে। তিনি  শ্রীপুরের ওই বাড়িতে ভাড়ায় থাকতেন এবং স্থানীয় ফখরুদ্দিন টেক্সটাইল কারখানায় কোয়ালিটি সুপারভাইজারের চাকরি করতেন।

advertisement 3

শ্রীপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) হাবিবুর রহমান মোল্লা জানান, নাজিম গত বছর এইচএসসি পাশ করেন। মেধাবী ছাত্র ছিলেন। আরও পড়ার ইচ্ছে ছিল তার। কিন্তু দরিদ্র বাবা তাকে পড়াতে রাজি হয়নি। এ নিয়ে বাবার সঙ্গে মনোমালিন্য হয় তার। অভিমানে একপর্যায়ে বাড়ি ছেড়ে দেন  তিনি।

advertisement 4

নাজিমের পাশের কক্ষে থাকেন আবু সাইদ। আমাদের সময় অনলাইনকে তিনি বলেন, ‘দুই মাস আগে নাজিম ওই কক্ষটি ভাড়া নেয়। চাকরির ফাঁকে ছোট শিশুদের প্রাইভেট পড়াতো সে। আজ জুমার নামাজের আগে সর্বশেষ কথা হয়। কিন্তু নামাজ শেষে বাসায় ফিরে নাজিমের কক্ষের দরজা ভেতর থেকে বন্ধ দেখতে পাই। ডাকাডাকি করলেও কোনো সাড়া পাইনি। পরে বাড়ির মালিককে জানালে তিনি পুলিশকে খবর দেন। একপর্যায়ে নাজিমের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়।’

শ্রীপুর থানার এসআই হাবিবুর রহমান উকিল বলেন, ‘নাজিমের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। স্বজনদের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে পরর্বতী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

advertisement