advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ছিনতাই মামলায় পুলিশ কনস্টেবলের ২ দিনের রিমান্ড

আদালত প্রতিবেদক
২৪ নভেম্বর ২০২২ ০৯:১৪ পিএম | আপডেট: ২৪ নভেম্বর ২০২২ ০৯:১৫ পিএম
প্রতীকী ছবি
advertisement

৯ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের মামলায় কুড়িগ্রাম থানার পুলিশ কনস্টেবল উজ্জল মিয়ার ২ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। আজ বৃহস্পতিবার ঢাকার অ্যাডিশনাল চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট তোফাজ্জল হোসেন এ রিমান্ড আদেশ দেন। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মতিঝিল থানার উপপরিদর্শক মুরাদ হুসাইন এ রিমান্ড আবেদন করেন।

মতিঝিলের হক চেম্বারের অফিস সহকারি রাসেল আহমেদ গত ২৩ নভেম্বর মতিঝিল থানায় এ মামলা করেন। কুড়িগ্রাম থানার পুলিশ কনস্টেবল উজ্জল মিয়া ও তার সহযোগী মামুন মাদবরকে আসামি করে মামলা করেন রাসেল।

advertisement

মামলার অভিযোগে জানা যায়, গত ৬ নভেম্বর বাদী রাসেল ৯ লাখ টাকা নিয়ে মতিঝিল শাখার আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংকের অ্যাকাউন্টে জমা দিতে যান। তিনি সকাল ১০টায় টাকা নিয়ে মতিঝিলের জনতা ব্যাংকের পাশে আসা মাত্রই মোটরসাইকেল নিয়ে দাঁড়িয়ে থাকা একজন নিজেকে পুলিশ পরিচয় দিয়ে রাসেলের পথ আটকায়। পরে ব্যাগ চেক করে টাকা দেখে বলে, রাসেল অবৈধ ব্যবসা করে টাকা উপার্জন করেছে। এ সময় পুলিশ পরিচয় দেওয়া উজ্জল রাসেলকে মারধর শুরু করে।

advertisement 4

উজ্জলের সঙ্গে কথা বলার একপর্যায়ে মামুন নামের এক ব্যক্তি এসে রাসেলকে বলে, ‘স্যার যা বলে তাই শোন, তোর ভালোর জন্য বলতেছি। তুই মোটর সাইকেলে ওঠ, না হলে স্যার কিন্তু তোর কঠিন ক্ষতি করবে।’ পরে রাসেল ভয় পেয়ে মোটরসাইকেলে উঠে। তাকে হানিফ ফ্লাইওভারের সায়েদাবাদ ঢালে এনে নামিয়ে দেয় ওই ব্যক্তি। এ সময় পুলিশ পরিচয় দেওয়া ওই ব্যক্তি রাসেলের কাছে থাকা ৯ লাখ টাকা নিয়ে যায়।

এ ঘটনার পর রাসেল ওই দুই ব্যক্তিকে রাজধানীর বিভিন্ন জায়গায় খুঁজতে থাকে। গতকাল বুধবার সকাল ১১টায় মতিঝিল সিটি জেন্স ব্যাংক লিমিটেডের প্রধান শাখার সামনে ওই দুই ব্যক্তিকে দেখতে পায় রাসেল। এ সময় উপস্থিত লোকজনের সহায়তায় তাদের আটকানোর চেষ্টা করে রাসেল। তবে উজ্জল মিয়াকে আটক করতে সক্ষম হলেও অপরজন পালিয়ে যায়।

advertisement