advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

দ্রুত খেয়ে দম্পতির রেকর্ড

অনলাইন ডেস্ক
২৫ নভেম্বর ২০২২ ১১:১৫ এএম | আপডেট: ২৫ নভেম্বর ২০২২ ১১:১৫ এএম
বিশ্ব রেকর্ডের সনদ হাতে নিকোলাস ওহেরি ও মিকি সুদো দম্পতি। ছবি: টুইটার থেকে
advertisement

দ্রুত খাওয়ার জন্য খ্যাতি রয়েছে নিকোলাস ওহেরি ও মিকি সুদো দম্পতির। সেই ‘গুণ কাজে লাগিয়ে এবার বিশ্ব রেকর্ডের খাতায় নাম তুলেছেন তারা। যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডায় থাকেন এ দম্পতি।

গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের তথ্য অনুযায়ী, সম্প্রতি মিকি আস্ত একটি বুরিত্তো মাত্র ৩১ দশমিক ৪৭ সেকেন্ডে খেয়েছেন। বুরিত্তো মেক্সিকান একটি খাবার। সবজি ও মাংসের পুর দেওয়া বড়সড় একটি রোল। এর মধ্য দিয়ে সবচেয়ে দ্রুত বুরিত্তো খাওয়ার নতুন বিশ্ব রেকর্ড গড়েছেন মিকি। আগের রেকর্ডের চেয়ে দশমিক ৮৮ সেকেন্ড কম সময়ে তিনি খাওয়া শেষ করেছেন।

advertisement

শুধু তা–ই নয়, একই দিনে মিকি এক মিনিটে ছয়টি হটডগ খেয়ে আরেকটি বিশ্ব রেকর্ড গড়েছেন। এর আগে এক মিনিটে তিনটি হটডগ খাওয়ার রেকর্ড ছিল। সেই তুলনায় এক মিনিটে মিকি তিনটি হটডগ বেশি খেয়েছেন।

advertisement 4

এ তো গেল মিকির অর্জন, তার স্বামী নিকোলাসও কম নন। তিনি একটানা ১২টি হটডগ খেয়েছেন। তা–ও মাত্র তিন মিনিটে। এর মধ্য দিয়ে তিন মিনিটে সবচেয়ে বেশি হটডগ খাওয়ার বিশ্ব রেকর্ড গেছে নিকোলাসের দখলে। এর আগে, রেকর্ডে তিন মিনিটে নয়টি হটডগ খাওয়ার রেকর্ড ছিল।

নিকোলাস–মিকি দম্পতি অনেক আগে থেকেই দ্রুত খাওয়ার জন্য পরিচিত। তবে চার বছর আগে দ্রুত খাওয়ার একটি প্রতিযোগিতায় তাদের প্রথম দেখা হয়। সেখান থেকে আলাপ, পরে তা বিয়েতে গড়ায়। তারা যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে ‘ক্ষুধার্ত দম্পতি’ বা ‘হাংরি কাপল’ নামে পরিচিত। তাদের সংসারে একটি সন্তান রয়েছে। তারা দ্রুত খাওয়ার বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় একে অপরের প্রতিযোগীও।

দ্রুত খাওয়ার প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে ভীষণ ভালো লাগে বলে মন্তব্য করে মিকি বলেন, ‘এমন একটি প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার সময় নিকোলাসের সঙ্গে আমার প্রথম দেখা। সেখান থেকে আলাপ, বিয়ে, সংসার।’

তিনি আরও বলেন, এখন তিনি আর নিকোলাস দ্রুত খেতে পারা ব্যক্তিদের বিশ্ব র‌্যাকিংয়ে যথাক্রমে তৃতীয় ও চতুর্থ অবস্থানে রয়েছেন।

advertisement