advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

দেশে দ্রুতই করোনা ভ্যাকসিন তৈরি হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ০৩:০৬ পিএম | আপডেট: ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ০৬:০৩ পিএম
সংসদে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। পুরোনো ছবি
advertisement

দেশে অতি দ্রুত করোনা ভ্যাকসিন তৈরি করা হবে, এ লক্ষ্যে প্রস্তুতির কাজ চলছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। এ সময় এখন পর্যন্ত ১৬ কোটি ভ্যাকসিনের অর্ডার আছে বলেও তিনি জানান। আজ বুধবার জাতীয় সংসদের অধিবেশনে আইন প্রণয়নের সময় দেওয়া বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

ওই সময় সংসদ সদস্যদের দেওয়া বক্তব্যে উপস্থাপিত বিভিন্ন অভিযোগ ও প্রশ্নেরও উত্তর দেন মন্ত্রী। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন।

সংসদে জাহিদ মালেক বলেন, ‌‘আমরা শুধু ভ্যাকসিন আনছি না; প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন যত তাড়াতাড়ি সম্ভব দেশে করোনার ভ্যাকসিন তৈরি করা। সেই লক্ষ্যে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। অতি দ্রুত দেশে ভ্যাকসিন তৈরি করা হবে।’

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘ইতোমধ্যে আড়াই কোটি মানুষকে টিকা দেওয়া হয়েছে। দেড় কোটি মানুষকে ডাবল ডোজ করে টিকা দেওয়া হয়ে গেছে। চীন থেকে ৬ কোটি ডোজ টিকার নিশ্চয়তা পাওয়ার পর দেখলাম এই টিকা আনতে দুই থেকে তিন হাজার কোটি টাকা দরকার। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, টাকা যত লাগুক টিকা নিয়ে আনতে হবে। আমরা কোভ্যাক্স থেকে ৫ কোটি টিকা পাবো। সব মিলিয়ে ১৬ কোটি ভ্যাকসিনের অর্ডার আছে। ’

করোনার ভ্যাকসিন গ্রামগঞ্জ পর্যন্ত নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলেও জানান জাহিদ মালেক। তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের স্বাস্থ্য ব্যবস্থার যে উন্নতি হয়েছে; হাসপাতালের সার্ভিস ক্ষমতার উন্নতি হয়েছে সেটা করোনার সময় বোঝা গেছে। কেউ চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে যায়নি, যেতে পারেননি। দেশে মানুষ চিকিৎসা নিয়েছেন। বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে বাংলাদেশে উন্নতমানের চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। কোভিড, নন কোভিড, ডেঙ্গু সব চিকিৎসায় দেশে হয়েছে। ’

১২০টি সেন্ট্রাল অক্সিজেন লাইন স্থাপন করেছেন জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘করোনার চিকিৎসা ভালো হয়েছে বলেই আজ মৃত্যুর সংখ্যা ৩৫-এ নেমেছে। যেখানে আমেরিকায় এখন দেড় হাজার মানুষ করোনায় মারা যাচ্ছে। ভারতেও অনেক মানুষ মারা যাচ্ছে।’

advertisement