advertisement
DARAZ
advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

গাজীপুরের মেয়রকে বেকায়দায় ফেলতে অডিও জালিয়াতি!

মোহাম্মদ আলম,গাজীপুর থেকে
২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১১:২৯ পিএম | আপডেট: ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১০:০৮ এএম
গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম। পুরোনো ছবি
advertisement

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলমকে বেকায়দায় ফেলতে অডিও জালিয়াতি করেছে দুর্বৃত্তরা। মেয়রের একটি অডিও রেকর্ড এডিট করে তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়া হয়। পরিকল্পিতভাবে এই রেকর্ডকে ইস্যু করে আবার বিক্ষোভ প্রদর্শনের ঘটনাও ঘটেছে।

জানা গেছে, গত মঙ্গলবার গাজীপুরের জয়দেবপুর ও টঙ্গীতে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করে মেয়রের প্রতিপক্ষ হিসেবে পরিচিত একটি চিহ্নিত চক্র। বিক্ষোভকারীরা এ সময় মেয়রকে উদ্দেশ করে কুরুচিপূর্ণ স্লোগান দেয়। এদিকে, রেকর্ডিংটি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, প্রথম ৩ সেকেন্ড কথা বলছেন মেয়র। এরপরের চার মিনিটের কোথাও মেয়রের কণ্ঠ পাওয়া যায়নি। তবে হীন উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে মেয়রের খণ্ড খণ্ড অডিও রেকর্ড খুব চতুরতার সঙ্গে এতে যুক্ত করে দেওয়া হয়। এতে মেয়রকে এমনভাবে উপস্থাপনের অপচেষ্টা হয় যাতে মনে হয় তিনি জাতির পিতাকে কটূক্তি করছেন!

এ ছাড়া একজন মন্ত্রী ও স্থানীয় একজন আওয়ামী লীগ ও যুবলীগ নেতা নিয়েও আপত্তিকর বক্তব্য সাজানো হয় কৌশলে। শুধু তাই নয়, দেশের সর্বোচ্চ গোয়েন্দা সংস্থার কাছে মেয়রকে হেয়প্রতিপন্ন করার উদ্দেশে তাদের জড়িয়েও মন্তব্যের নানা কারসাজি করা হয়।

পুরো রেকর্ডিংটি আকর্ষণীয় করতে বানানো হয় একটি থাম্বনেইলও। যেখানে বির্তকিত রিজেন্ট হাসপাতালের সাহেদ করিম, বিতর্কিত নারী নেত্রী হেলেনা জাহাঙ্গীরের ছবি জুড়ে দেওয়াই প্রমাণ করে বিষয়টি উদ্দেশ্য প্রণোদিত।
উল্লেখ্য, তথ্যপ্রযুক্তির চরম উৎকর্ষের যুগে অডিও জালিয়াতির ঘটনা এটিই প্রথম নয়। আবিস্কৃত বিভিন্ন অ্যাপস ও সফটওয়ারের কল্যাণে আপনি চাইলে মুহূর্তেই নকল করে ফেলতে পারেন খোদ যুক্তরাষ্ট্র প্রেসিডেন্টের কণ্ঠও। অবিকল মনে হতে পারে আপনি যাকে উদ্দেশ্য করে অডিও বানাতে চান। ধারণা করা হচ্ছে, এমনই কোনো সফটওয়্যারের আশ্রয় নিয়ে এই জালিয়াতির ঘটনা ঘটানো হতে পারে।

এদিকে, তৃণমূল থেকে উঠে আসা জাহাঙ্গীর আলমকে নিয়ে এমন ষড়যন্ত্র করায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে। মেয়রকে নিয়ে চক্রান্তকারীদের বিচারও দাবি করেন স্থানীয় সচেতন মহল। মেয়রের অনুসারীরা বলছেন, গাজীপুরের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডে ঈর্ষান্বিত হয়ে একটি সংঘবদ্ধ চক্র মেয়রের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে।

জানতে চাইলে মেয়র অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে গাজীপুরের উন্নয়নের দায়িত্ব দিয়েছেন। আমি নিরলস ও নির্মোহভাবে কাজ করে যাচ্ছি। মাঠে ময়দানে ছাত্র রাজনীতি করেছি। এর আগেও আমাকে নিয়ে ষড়যন্ত্র হয়েছে। শুধু একটি কথা বলি, বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিককে যারা কটূক্তিকারী বানানোর চেষ্টা করে, তাদের উদ্দেশ্য কখনোই সফল হবে না।

advertisement