advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

চোরাই গাড়ির মুক্তিপণ আদায় করেন তারা

নিজস্ব প্রতিবেদক
৩০ নভেম্বর ২০২১ ১২:০০ এএম | আপডেট: ৩০ নভেম্বর ২০২১ ০২:০৬ এএম
advertisement

রাজধানীর তুরাগে সংঘবদ্ধ গাড়ি চোরচক্রের দুই সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-৪, যারা গাড়ি চুরির পর মালিককে ফোন করে মুক্তিপণ বাবদ মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করেন। আর টাকা পেলে গাড়ি ফিরিয়ে দেন, নয়তো গুরুত্বপূর্ণ সব যন্ত্রাংশ খুলে বিক্রি করে দেন খোলা বাজারে। ভুক্তভোগী এক গাড়ির মালিকের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে গত রবিবার তুরাগ থানাধীন বাউনিয়া বাজার এলাকা থেকে চোরচক্রের সদস্য মো. শরিফ ও নাজমুল হোসেনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি চোরাই পিকআপ উদ্ধার করা হয়।

advertisement 3

র‌্যাব ৪-এর অপারেশন অফিসার সাজেদুল ইসলাম বলেন, ‘সংঘবদ্ধ গাড়ি চোরচক্রের গ্রেপ্তার দুই সদস্য পলাতক আসামিদের সহায়তায় পরস্পর যোগসাজশে ঢাকার বিভিন্ন এলাকা থেকে পিকআপ ভ্যান চুরির পর নিজস্ব গ্যারেজে রেখে মালিকদের ফোন করত। মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে তাদের কাছে বিপুল পরিমাণ টাকা দাবি করত তারা। কেউ টাকা দিতে না চাইলে আসামিরা সেই চোরাই গাড়ির বিভিন্ন

advertisement 4

প্রয়োজনীয় যন্ত্রাংশ খুলে তা বিভিন্ন মটর্সের দোকানে খুচরা মূল্যে অবৈধভাবে বিক্রি করে দিত। এভাবে দীর্ঘদিন ধরে তারা অসংখ্য পিকআপ ভ্যান ও গাড়ি চুরি করে বিপুল টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে স্বীকার করেছে।’ এ চক্রের পলাতক অন্য সদস্যদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে বলেও র‌্যাবের এই কর্মকর্তা জানান।

advertisement