advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

ভোটাধিকার ফিরে পেয়ে কাঁদলেন চলচ্চিত্র শিল্পীরা

বিনোদন প্রতিবেদক
১১ জানুয়ারি ২০২২ ০৭:৫৭ পিএম | আপডেট: ১১ জানুয়ারি ২০২২ ০৭:৫৭ পিএম
সংগৃহীত ছবি
advertisement

গেল নির্বাচনে ভোট দিতে পারেননি ১৮৪ জন চলচ্চিত্র শিল্পী। তারা বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সদস্য হয়েও বর্তমান কমিটির আপত্তির মুখে ভোটাধিকার হারান। তারপর থেকেই চলছিল আইনি লড়াই। ১৮৪ জনের পক্ষে ১৮ জন আদালতে মামলা করেছিলেন।

সেই মামলার রায় আজ শিল্পীদের পক্ষে এসেছে বলে জানিয়েছেন মামলার বাদী রমিজ, সাদিয়া মির্জা ও খোকন পাশা। তারা আজ মঙ্গলবার আনন্দ মিছিল নিয়ে এফডিসিতে প্রবেশ করেন। এসময় নিজেদের অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে কেঁদে ফেলেন অনেকেই।

অভিনেত্রী সাদিয়া মির্জা বলেন, ‘এই আনন্দের ভাষা বলে বোঝানো যাবে না। অনেক অপমান সইতে হয়েছে। অন্যায়ের বিচার হয়েছে। আমরা ভোটাধিকার ফেরত পেয়েছি। এবারের নির্বাচনেই আমরা ভোট দিতে পারবো।’

আরেক বাদী খোকন পাশা বলেন, ‘হাইকোর্টের রায় পেয়ে আনন্দে কেঁদে ফেলেছি। আজ স্মরণ করছি এই ভোটাধিকার ফেরত পাওয়ার আন্দোলনের ১৯ জন সঙ্গীকে। যারা গত দুই বছরে মারা গেছেন। তারা সমিতির সদস্য ছিলেন। অসহায়ভাবে করুণ অবস্থায় অনেকের মৃত্যু হয়েছে। মিশা-জায়েদের কমিটি তাদের খবর রাখেনি। অন্যায়ের পরাজয় হয়েছে।’

আসছে নির্বাচনে ভোট দেওয়ার অধিকার পেয়ে আনন্দিত শিল্পীরা। তারা জানান, এবার ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলকে সমর্থন করবেন তারা। কারণ ভোটাধিকার ফেরত পেতে অভিনেত্রী নিপুণ তাদের অনেক সহায়তা করেছেন।

নিপুণ এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘এতজন সদস্য ভোটাধিকারের জন্য লড়াই করেছেন, আন্দোলন করেছেন এটা দেখে হতাশ হয়েছিলাম। তারা আজ অধিকার ফিরে পেয়েছেন দেখে ভালো লাগছে।’

মামলার তিন বাদী জানান, আগামী ১০ দিনের মধ্যে ১৮৪ জন সদস্যের ভোটাধিকার ফেরত দিতে আদেশ দিয়েছেন আদালত। সেই সঙ্গে তাদের ভোটের অধিকার বাতিল করা কেন অবৈধ হবে না এই মর্মে বর্তমান কমিটিকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে।

advertisement
advertisement