advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement

রহস্যজনকভাবে খুন হওয়া কে এই চিত্রনায়িকা শিমু?

বিনোদন ডেস্ক
১৮ জানুয়ারি ২০২২ ০১:৫৩ পিএম | আপডেট: ১৮ জানুয়ারি ২০২২ ০১:৫৯ পিএম
চিত্রনায়িকা রাইমা ইসলাম শিমু। পুরোনো ছবি
advertisement

সিনেমা পাড়ায় আলোচনার শেষ নেই। একটা শেষ না হতেই যোগ হয় আরেকটা। বেশ কিছু দিন ধরেই বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন ঘিরে চলছিল নানা আলোচনা। এবার ঘটল নতুন ঘটনা। এক দিন নিখোঁজ থাকার পর উদ্ধার করা হয়েছে ঢাকাই সিনেমার নায়িকা রাইমা ইসলাম শিমুর বস্তাবন্দি মরদেহ। গতকাল সোমবার সকাল ১০টার দিকে কেরানীগঞ্জের হযরতপুর ব্রিজের কাছ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

শিমু হত্যার ঘটনায় ইতিমধ্যে তার স্বামী নোবেল ও নোবেলের বন্ধু ফরহাদকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। সোমবার দিবাগত রাতে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় একটি গাড়িও জব্দ করা হয়েছে।

রহস্যময় এই হত্যার ঘটনার পর থেকে কৌতূহল জন্মেছে সিনেমাপ্রেমীদের মধ্যে। আলোচনা চলছে নেটদুনিয়ায়। অনেকের মনেই প্রশ্ন কে এই চিত্রনায়িকা রাইমা ইসলাম শিমু?

জানা যায়, আজ থেকে ঠিক দুই যুগ আগে ১৯৯৮ সালে বড় পর্দায় অভিষেক ঘটে বরিশালের মেয়ে রাইমা ইসলাম শিমুর। তার প্রথম সিনেমা কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘বর্তমান’। যেখানে তিনি অভিনয় করেন তখনকার জনপ্রিয় তারকা মান্না, মৌসুমী, ডিপজল প্রমুখের সঙ্গে।

এরপর ছয় বছরে একে একে অভিনয় করেছেন ২৩টিরও বেশি সিনেমায়। তবে সবশেষ তাকে দেখা গেছে ২০০৪ সালে মুক্তি পাওয়া ‘জামাই শ্বশুর’ সিনেমায়। ফলে এই সময়ের দর্শকদের কাছে তিনি ততটা পরিচিত নন।

তবে গত কয়েক বছর ধরে শিমু নাটকের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। অভিনয় করেছেন প্রায় ৫০টি নাটকে। সাম্প্রতিক সময়ে আলোচিত নাটক ‘ফ্যামিলি ক্রাইসিস’-এও অভিনয় করেছেন তিনি। পাশাপাশি প্রযোজক হিসেবেও কাজ করেছেন তিনি। তার নিজের প্রোডাকশন হাউজ ছিল। মাঝে মধ্যে পরিচালনাও করতেন এই নায়িকা।

রহস্যজনকভাবে খুনের শিকার হওয়া এই নায়িকা বাংলাদেশের অনেক গুণী পরিচালকের সঙ্গে কাজ করেছেন। তাদের মধ্যে রয়েছেন-প্রয়াত চাষী নজরুল ইসলাম, দেলোয়ার জাহান ঝন্টু, দেওয়ান নজরুল, এ জে রানা, শরিফুদ্দিন খান দ্বীপু, ওস্তাদ জাহাঙ্গীর আলম, স্বপন চৌধুরী, এনায়েত করিম, শবনম পারভীন।

তিনি অভিনয় করেছেন রিয়াজ, অমিত হাসান, বাপ্পারাজ, জাহিদ হাসান, মোশারফ করিম, শাকিব খানসহ অনেক গুণী ও জনপ্রিয় অভিনেতাদের বিপরীতে।

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি থেকে বাদ পড়া ১৮৪ জন সদস্যদের একজন ছিলেন শিমু। ভোটাধিকার ফিরে পাওয়ার আন্দোলনে তিনি ছিলেন বেশ সক্রিয়। স্বামী ও দুই সন্তান নিয়ে শিমু রাজধানীর গ্রিনরোড এলাকার বাসায় থাকতেন।

হঠাৎ এই নায়িকার খুনের ঘটনায় তার সিনেমার বন্ধু ও স্বজনদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। চিত্রনায়ক ওমর সানি’সহ অনেকেই এই ঘটনায় সুষ্ঠু বিচার দাবি করেছেন।