advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ম্যারাডোনার চিকিৎসায় জড়িত ৮ জনকে দাঁড়াতে হবে কাঠগড়ায়

স্পোর্টস ডেস্ক
২৩ জুন ২০২২ ০৪:৫৬ পিএম | আপডেট: ২৩ জুন ২০২২ ০৪:৫৬ পিএম
দিয়েগো ম্যারাডোনা। ছবি : সংগৃহীত
advertisement

দিয়েগো ম্যারাডোনার মৃত্যু হয়েছে দেড় বছরের বেশি সময়। তবে এখনও এনিয়ে বিতর্ক শেষ হয়নি। আর্জেন্টিনা মহাতারকা মৃত্যুর আগে তার চিকিৎসায় অবহেলা হয়েছে কিনা সে ব্যাপারে তদন্ত চলছে।

বুধবার আর্জেন্টিনার আদালতে প্রকাশিত এক রায়ে জানা গেছে ম্যারাডোনার মৃত্যুর আগে তার সেবায় নিয়োজিত চিকিৎসক, নার্সসহ আটজনকে বিচারের মুখোমুখি হতে হবে। তাদের বিরুদ্ধে ‘সাধারণ হত্যার' অভিযোগ আনা হয়েছে।

এই আটজনের মধ্যে রয়েছেন ম্যারাডোনার পারিবারিক চিকিৎসক নিউরোসার্জন লেওপোন্দো লুকু, সাইকিয়াট্রিস্ট অগুস্টিনা কোসাচোভ, সাইকোলজিস্ট কার্লস ডিয়াজ ও মেডিক্যাল কোঅর্ডিনেটর ন্যান্সি ফোর্লিনি। তারা সবাই অবশ্য অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। আর কোসাচোভের আইনজীবী জানিয়েছেন তারা আপিল করবেন৷

এর আগে ২০২০ সালের ২৫ নভেম্বর ৬০ বছর বয়সে মারা যান ম্যারাডোনা। হার্ট অ্যাটাকে এই কিংবদন্তি মৃত্যু হয় বলে জানা যায়। পরে তার মৃত্যু তদন্তে আর্জেন্টিনার পাবলিক প্রসিকিউটর ২০ জন চিকিৎসা বিশেষজ্ঞের সমন্বয়ে একটি দল গঠন করেছিলেন। গতবছর তারা প্রতিবেদন জমা দেন৷ এতে তারা অভিযোগ করেন, ম্যারাডোনার চিকিৎসায় ‘অবহেলা ও অনিয়ম' ছিল।

এছাড়া তারা আরও জানান, ম্যারাডোনাকে উপযুক্ত জায়গায় চিকিৎসা দেয়া গেলে ‘তার বেঁচে থাকার ভালো সম্ভাবনা ছিল। তাকে সেবা দেয়া ব্যক্তিরা তার মৃত্যু পর্যন্ত ‘দীর্ঘ, যন্ত্রণাদায়ক সময়ের' জন্য তাকে তার ভাগ্যের ওপর ছেড়ে দিয়েছিলেন বলেও মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।

এদিকে বিচার শুরুর তারিখ এখনও নির্ধারণ করা হয়নি৷ অভিযোগ প্রমাণিত হলে আট থেকে ২৫ বছর পর্যন্ত সাজা হতে পারে৷