advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

সেই অসীমই হলেন সেরা

এম.এম. মাসুক
২০ নভেম্বর ২০২২ ০৭:১৫ পিএম | আপডেট: ২০ নভেম্বর ২০২২ ০৭:১৫ পিএম
অসীম গোপ। ছবি: সংগৃহীত
advertisement

আমাদের সময় পত্রিকার স্পোর্টস বিভাগে বসে দেওয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে জাতীয় হকি দলের গোলরক্ষক অসীম গোপ বলেছিলেন, প্রথমবারের মতো ঘরের মাঠে অনুষ্ঠিত ফ্র্যাঞ্চাইজি হকি লিগে দলকে চ্যাম্পিয়ন করাতে চান। তার এ স্বপ্ন পূরণ হয়নি। কেননা তার দল মেট্রো এক্সপ্রেস বরিশাল ফাইনালে উঠতে ব্যর্থ হয়েছে। সেমিফাইনালেই থেমে যায় বরিশালের অভিযান।

দলকে চ্যাম্পিয়ন করাতে না পারলেও টুর্নামেন্টের সেরা গোলরক্ষকের তকমাটা নিজের গায়ে সেঁটে নেন অসীম। অথচ এই অসীম গত প্রিমিয়ার হকি লিগে কোনো দলই পাননি। অবশ্য এ ক্ষেত্রে কোটার গ্যাঁড়াকলে পড়ে যান তিনি।

advertisement

প্রায় তিন বছর পর প্রিমিয়ার হকি লিগ মাঠে গড়ায়। নিয়ম অনুযায়ী প্রিমিয়ার হকি লিগে সার্ভিসেস সংস্থার সর্বোচ্চ পাঁচজন খেলোয়াড় নিতে পারে কোনো ক্লাব। মোহামেডান অসীমকে নেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত কোটা পূরণ করে ফেলায় তাকে আর দলে নিতে পারেনি সাদা-কালো জার্সিধারীরা।

advertisement 4

মোহামেডানের কাছ থেকে পারিশ্রমিক নেওয়ায় তখন অন্য দলে যাওয়ার সুযোগ ছিল না অসীমের। ফলে প্রিমিয়ার লিগে খেলতে পারেননি তিনি। শুধু প্রিমিয়ার লিগই নয়, প্রিমিয়ার লিগ পরবর্তী সকল আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টেও তাকে দলে নেওয়া হয়নি। গত ডিসেম্বরে ঢাকায় অনুষ্ঠিত এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফির দল থেকেও বাদ পড়েন অসীম। এরপর এ বছর মার্চে ইন্দোনেশিয়ায় অনুষ্ঠিত এএইচএফ কাপ (এশিয়ান হকি ফেডারেশন), মে মাসে থাইল্যান্ডে এশিয়ান গেমস বাছাই এবং জুনে ইন্দোনেশিয়ায় অনুষ্ঠিত এশিয়া কাপের দলেও ডাক পাননি।

জাতীয় দলে ডাক না পাওয়ায় হাল ছাড়েননি অসীম। ফিটনেস নিয়ে কঠোর পরিশ্রম করে গেছেন। জাতীয় দলের হয়ে খেলায় দীর্ঘ বিরতি থাকলেও সেই অসীমই হলেন ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগের সেরা গোলরক্ষক। অসীম বলেছেন, ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে নিজেকে প্রমাণ করার মঞ্চ ছিল। তিনি নিজেকে প্রমাণ করেছেন। করেছেন সেরা পারফরম্যান্স। লিগ শুরু হওয়ার আগে থেকেই ফিটনেসের ব্যাপারে সচেতন ছিলেন অসীম।

নিজেকে ফিট রাখতে ক্যাম্পে কোনো ভাত খেতেন না। শুধু সবজি, সালাদসহ অন্য পুষ্টিকর খাবার খেয়েছেন। ফিটনেস ধরে রাখার জন্য যা করার সবই করেছেন। আর তার পুরস্কার হাতে-নাতে পেয়েছেন। সামনে জাতীয় দলে ফেরার আশা তার। ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগের যে পারফরম্যান্স দেখিয়েছেন, তাতে জাতীয় দলে ফিরতে আত্মবিশ্বাসী অসীম গোপ।

প্রায় এক দশক হয়ে গেছে বাংলাদেশ জাতীয় হকি দলে অভিষেক হয়েছে অসীমের। ২০১২ সালে সিঙ্গাপুরে ওয়ার্ল্ড হকি লিগ দিয়ে জাতীয় দলে যাত্রা শুরু তরা। এরপর থেকে টানা সাত বছর খেলেছেন জাতীয় দলে জার্সি গায়ে। সর্বশেষ খেলেছিলেন থাইল্যান্ডে ২০১৯ সালে, ইনডোর এশিয়া কাপে। এরপর আর সুযোগ পাননি।

advertisement